শিরোনাম
বান্দরবানের সীমান্ত দিয়ে মিয়ানমারের আরও ১৩ সীমান্তরক্ষী পালিয়ে বাংলাদেশে রাঙ্গামাটিতে সাংগ্রাই জল উৎসব অনুষ্ঠিত খাগড়াছড়িতে আ.লীগ নেতার বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা, সড়কে যান চলাচল বন্ধ ফরিদপুরে বাস-পিকআপ সংঘর্ষে নিহত ১৩ জনের নাম-পরিচয় পাওয়া গেছে বারতে পারে মৃত্যুের সংখ্যা বৈশ্বিক স্বাধীনতা সূচকে ১৬৪ দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ১৪১ কঠোর অবস্থানে ইরান, হামলার পাল্টা হামলা হবে ভয়াবহ, জবাব দেয়া হবে কয়েক সেকেন্ডেে রাঙ্গামাটি ৪ উপজেলায় নির্বাচনে: মনোনয়নপত্র জমা দিলেন ৩৭ জন টেস্ট পরীক্ষার নামে বাড়তি ফি আদায় করা যাবে না: শিক্ষামন্ত্রী বিশ্বকাপ নিয়ে বেশি প্রত্যাশার দরকার নেই বলছেন শান্ত বান্দরবানের ৪ উপজেলায় নির্বাচন: মনোনয়নপত্র জমা দিলেন ৩২ জন

রাঙ্গামাটিতে ধর্ষণের দায়ে একজনের যাবজ্জীবন

রিপোর্টার
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০২৪
  • ১০৬ দেখা হয়েছে

রাঙ্গামাটি;- রাঙ্গামাটির লংগদু উপজেলায় সপ্তম শ্রেণির স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের দায়ে ধর্মান্তরিত একজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল। একইসঙ্গে ১ লাখ টাকা জরিমানা দণ্ড দিয়েছে আদালত।

সোমবার (২২ জানুয়ারি) দুপুরে রাঙ্গামাটি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতের বিচারক এম ইসমাইল হোসেন এ রায় দেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি মো. ইব্রাহিম (৪৩) ধর্মান্তরিত হয়েছে, তার পূর্বের নাম ছিল কাঞ্চন কুমার বিশ্বাস। সে যশোর সদর উপজেলার বারান্দি পাড়া (লিচু তলা) গ্রামের সন্তোষ কুমার বিশ্বাসের ছেলে। ২০১১ সালে এ ঘটনার সময় ভিকটিম কিশোরী লংগদু উপজেলার একটি বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী ছিলেন। এক যুগের বেশি সময় পর এ মামলার রায় দিয়েছে আদালত।

এদিকে, ট্রাইব্যুনালের রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন রাঙ্গামাটি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিশেষ পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট মো. সাইফুল ইসলাম অভি। তিনি বলেন, এ রায়ের মধ্য দিয়ে আমরা রাষ্ট্রকে ধন্যবাদ দিচ্ছি এবং সমাজে নারীজনিত অপরাধ কমে আসবে বলে আমার বিশ্বাস।

তবে আসামিপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট কাজী মইনুল ইসলাম বলেন, আমি মনে করি মামলায় আসামি খালাস পাওয়ার মতো সুযোগ ছিল। এ রায়ের প্রতি আমরা সংক্ষুব্ধ এবং উচ্চ আদালতে আপিল করব। আপিল করলে আমরা ন্যায়বিচার পাব বলে আমরা আশাবাদী।

মামলার নথিপত্র পর্যালোচনা করে জানা গেছে, ২০১১ সালের ১৫ জুন আসামি মো. ইব্রাহিম সপ্তম শ্রেণি পড়ুয়া ১৫ বছরের এক কিশোরীকে লংগদু উপজেলার আটারকছড়া ইউনিয়নের একটি খামার বাড়ি থেকে পার্শ্ববর্তী কলা বাগান নিয়ে মুখ চেপে ধরে ধর্ষণ করে। ওই সময় কিশোরীর চিৎকারে আশপাশে মানুষ এগিয়ে আসলে আসামি পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে তাকে স্থানীয় আটক করে পুলিশে দেয়। পরে ওই কিশোরীর পিতা বাদী হয়ে লংগদু থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন, ২০০০ এর ৯ (১) ধারায় অভিযোগ দায়ের করেন। এ মামলায় ঘটনার এক যুগ পর আসামিকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও জরিমানা দণ্ড দিয়েছেন আদালত।

আদালত রায়ে আসামিকে ৯০ দিনের মধ্যে কিশোরীর পরিবারকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে জরিমানার ১ লাখ টাকা বুঝিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে। আসামি ক্ষতিপূরণ পরিশোধে ব্যর্থ হলে আসামির স্থাবর, অস্থাবর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করে নিলামের মাধ্যমে টাকা পরিশোধের ব্যবস্থা নিতে জেলা কালেক্টরকে (জেলা প্রশাসক) নির্দেশ দেওয়া হয়।

পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো
© All rights reserved © 2023 Chtnews24.net
Website Design By Kidarkar It solutions