শুক্রবার, ৩০ জুলাই ,২০২১

Bangla Version
  
SHARE

শুক্রবার, ১৮ জুন, ২০২১, ১০:২১:২১

চীনের টিকা নিয়ে ইন্দোনেশিয়ায় করোনায় আক্রান্ত ৩৫০ চিকিৎসক

চীনের টিকা নিয়ে ইন্দোনেশিয়ায় করোনায় আক্রান্ত ৩৫০ চিকিৎসক

নিউজ ডেস্ক: চীনে উৎপাদিত সিনোভ্যাকের টিকা নেওয়ার পর ইন্দোনেশিয়ার ৩৫০ জনের বেশি চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে প্রায় অর্ধশতকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। বৃহস্পতিবার দেশটির স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ এ তথ্য জানিয়েছে।

সেন্ট্রাল জাভার কুদুস জেলার প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা বাদাই ইসমোইয়ো চ্যানেল নিউজ এশিয়াকে জানিয়েছেন, আক্রান্তদের অধিকাংশই লক্ষণবিহীন এবং তারা বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন। তবে প্রায় অর্ধশত হাসপাতালে ভর্তি আছেন। তাদের তীব্র জ্বর রয়েছে এবং শ্বাসকষ্টে ভুগছেন।

কুদুস জেলায় করোনার সংক্রমণের মাত্রা বেড়েছে। এর পেছনে ভাইরাসটির ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টকে দায়ী করা হচ্ছে।

ইন্দোনেশিয়ায় অগ্রাধিকার ভিত্তিতে স্বাস্থ্যকর্মীদের করোনার টিকা দেওয়া হচ্ছে। গত জানুয়ারি থেকে তাদের টিকা দেওয়া শুরু হয়েছে। অধিকাংশকেই চীনের সিনোভ্যাক টিকা দেওয়া হয়েছে।

অস্ট্রেলিয়ার গ্রিফিথ ইউনিভার্সিটির মহামারি বিশেষজ্ঞ ডিকি বুদিম্যান বলেছেন,পরিসংখ্যানে দেখা যাচ্ছে, এটি ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট, তাই বিস্ময়ের কিছু নেই যে, আগের চেয়ে নতুন সংক্রমণ অনেক বেশি। আমরা জানি, ইন্দোনেশিয়ার স্বাস্থ্যকর্মীদের অধিকাংশ সিনোভ্যাকের টিকা পেয়েছিলেন এবং আমরা এখনও জানি না বাস্তবে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে এটা কতোটা কার্যকর।

 

এই বিভাগের আরও খবর

  কক্সবাজারে জমি অধিগ্রহণে অনিয়ম,সাবেক ডিসি এডিসি পৌর মেয়রসহ আসামি ৪০,চার্জশিট চূড়ান্ত

  নিরুপায় হয়ে দেশে ফিরে ৪ লাখ বাংলাদেশি

  ঈদুল আজহার আগে-পরে সড়কে ঝরল ২০৭ প্রাণ

  রাঙ্গামাটির কাপ্তাই জলবিদ্যুৎ কেন্দ্রে বেড়েছে উৎপাদন, সচল ৪ ইউনিট

  আম নিয়ে নতুন ভাবনা,উৎপাদনে সপ্তম, টার্গেট বিশ্ববাজার

  হোয়াইট হাউসে প্রথম আরব নেতা হিসেবে আমন্ত্রণ পেলেন জর্ডানের বাদশাহ

  মুখে গুলি করেও যে নারীকে দমাতে পারেনি স্বামী

  আগস্টেই করোনার তৃতীয় ঢেউ ভারতে, ঝুঁকিতে বিশ্ব

  এই প্রথমবার মার্কিন নৌবাহিনীর এলিট ফোর্সে যুক্ত হচ্ছে নারী সদস্য

  ব্রিটেনে করোনা বিধিনিষেধ নিয়ে ১২০০ বিজ্ঞানীর হুঁশিয়ারি!

  সিলেবাস থেকে বাদ রবীন্দ্রনাথ, পড়ানো হবে যোগী-রামদেবের বই

আজকের প্রশ্ন

বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেছেন, পুলিশের ওপর নির্বাচন কমিশনের কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই। আপনিও কি তা-ই মনে করেন?