শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ,২০২১

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ২৫ জুলাই, ২০২১, ০৬:৩৩:২১

এক পাশ ফিরে ঘুমানো কি স্বাস্থ্যর পক্ষে ভাল?

এক পাশ ফিরে ঘুমানো কি স্বাস্থ্যর পক্ষে ভাল?

ডেস্ক রির্পোট:-বহু দিন ধরে মনে করা হত, চিৎ হয়ে শোওয়াই সবচেয়ে ভাল। তাতেই শরীরে আরাম পাওয়া যায়। কিন্তু সম্প্রতি এক গবেষণা বলছে, এক পাশ ফিরে শোওয়া স্বাস্থ্যের পক্ষে অনেক বেশি ভাল। ঠিক মতো শুতে পারলে পিঠে-কোমরে ব্যথা কমে যেতে পারে। নাক ডাকার সমস্যাও অনেকটা কমে যায়। যাঁদের ওবস্ট্রাক্টিভ স্লিপ অ্যাপনিয়ার মতো জটিল অসুখ রয়েছে, তাঁদের ক্ষেত্রেও নাক ডাকা একটি প্রধান উপসর্গ। এই রোগ থাকলে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হতে পারেন বা ডায়াবিটিসের সমস্যাও তৈরি হতে পারে। এক পাশ ফিরে শুলে এই রোগের আশঙ্কা কমবে। এক দিকে ঘুমনোর ঝুঁকি কী কী পিঠ আর কোমরের ব্যথা কমলেও এক দিকে সারাক্ষণ শুয়ে থাকলে শরীরের অন্য অংশে ব্যথা হয়ে যেতে পারে। তাই মাঝে মাঝে পাশ বদল করতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে থুতনি যেন বুকের কাছে ঝুঁকে না যায়। তা হলে ঘাড়ে, গলায় ব্যথা হতে পারে। খুব নরম বালিশ বা গদিতে তাই না শোওয়াই ভাল। কোন দিকে শুলে উপকার বেশি ঘুমের মধ্যে পাশ ফেরা বা বদল করা খুবই স্বাভাবিক ব্যাপার। তবে বাঁ দিকে শোওয়া শরীরের পক্ষে বেশি উপকারি বলে ধরে নেওয়া হয়। কারণ এ ভাবে শুলে শরীরের বিভিন্ন অঙ্গ-প্রতঙ্গ বেশি খোলামেলা ভাবে শ্বাস নিতে পারে এবং শরীর থেকে যাবতীয় বিষাক্ত পদার্থ সহজেই বেরিয়ে যেতে পারে। পেটের উপর ভর দিয়ে শুলে শরীরের বিভিন্ন প্রতঙ্গে সবচেয়ে বেশি চাপ পড়ে। পাশ ফিরে ঘুমোলে কী কী মাথায় রাখবেন ১। একটা মোটামুটি শক্ত গদি ব্যবহার করুন। খুব শক্ত হলেও ঘুম আসতে অসুবিধা হবে। একটা শক্ত বালিশ নিন। ২। বাঁ দিকে করে ঘুমনোর চেষ্টা করুন। কান, ঘার যেন সমান্তরাল থাকে। থুতনি যেন বুকের দিকে ঝুঁকে না যায়। ৩। হাত মুখের কাছ থেকে সরিয়ে শরীরের পাশে রাখুন। ৪। দু’পায়ের ফাঁকে একটা বালিশ নিন। যাতে দুই হাঁটু লেগে না যায়। ৫। হাটু সামান্য মুড়ে শুলে শিরদাঁড়ায় বেশি টান পড়বে না।

এই বিভাগের আরও খবর

  দীঘিনালায় বাবা-মা'র সামনে মাল্টিপ্লাগে আঙুল দিয়ে শিশুর মৃত্যু

  ইপিজেডে চোলাই মদসহ রাঙ্গামাটির ২ পাহাড়ি যুবক গ্রেপ্তার

  নির্বাচন কমিশনার মাহবুব‘এ ধরনের বক্তব্য’ কীভাবে দেন, জানতে চান ওবায়দুল কাদের

  ‘ব্রিফকেসবন্দি’ ২১০টি পত্রিকা বন্ধে জেলা প্রশাসনের কাছে চিঠি

  করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ২৪ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১১৪৪

  রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালে কোভিড ইউনিট ও সেন্ট্রাল অক্সিজেন সরবরাহ প্লান্ট উদ্বোধন

  কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেলের মুখে আলোক রেখা

  রাঙ্গামাটি,খাগড়াছড়ি ও বান্দরবানে এখন পর্যন্ত আশানুরূপ পর্যটক আসছেন না

  রাঙ্গামাটির কাপ্তাই পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রে বেড়েছে উৎপাদন, ২৪ ঘণ্টায় ১৬৬ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন

  রোহিঙ্গা প্রশ্নে আন্তর্জাতিক শক্তিগুলোর নিষ্ক্রিয়তায় মর্মাহত বাংলাদেশ : প্রধানমন্ত্রী

  বৃহস্পতিবার থেকে ১১ দিন বান্দরবান থাকবেন পার্বত্যমন্ত্রী বীর বাহাদুর



 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন