মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ,২০২১

Bangla Version
  
SHARE

শনিবার, ৩১ জুলাই, ২০২১, ০৪:৫১:০৮

গর্ভবতী স্ত্রীকে নদীতে ফেলে দিলেন স্বামী

গর্ভবতী স্ত্রীকে নদীতে ফেলে দিলেন স্বামী

ডেস্ক রির্পোট:- হাত-পা বেঁধে বস্তাবন্দি করে চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে নদীতে ফেলে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন স্বামী ও তার সহযোগীরা। ঘটনাটি দেখতে পান এক প্রতিবেশী। পরে তার চিৎকারে অন্যরা ছুটে আসেন। গৃহবধূকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য তাহিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। শুক্রবার (৩০ জুলাই) রাত ৮টার দিকে সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার বাদাঘাট উত্তর ইউনিয়নের বোলাখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এলাকা জুড়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। গৃহবধূ মাইফুল নেছার মা মমতা বেগম জানান, মাইফুল নেছার (২৩) সঙ্গে দোয়ারাবাজার উপজেলার চৌধুরীপাড়া গ্রামের সাজিদুল মিয়ার ছেলে আবু তাহের জান্নাতের (২৮) পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর আবু তাহের স্ত্রীকে নিয়ে শ্বশুর বাড়ির পাশে ভোলাখালি গ্রামে বাসা ভাড়া নিয়ে বসবাস করছিলেন। পাশাপাশি পাশেই একটি ঘরে পোল্ট্রি মুরগির ব্যবসা শুরু করেন। কয়েক মাস ধরে মাইফুলকে যৌতুকের টাকার জন্য চাপ দিচ্ছিল আবু তাহের। কিন্তু টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে শারীরিক নির্যাতন শুরু করেন। মাইফুল নেছার দুলা ভাই আশু মিয়া (২৫) ও বড় ভাই ওবায়দুল্লাহ জানান, বিয়ের পর থেকেই তারা আমার বোনকে নির্যাতন করছিল। যৌতুকের ৫০ হাজার টাকার দাবি মেটানোর পরও নির্যাতন বন্ধ করেনি। আজ হাত-পা বেঁধে আমার বোনকে নদীতে ভাসিয়ে দিতে চেয়েছিল। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত আবু তাহের জান্নাত ও তার সহযোগীরা পলাতক রয়েছে। বাদাঘাট পুলিশ ক্যাম্পের সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আজকের প্রশ্ন

বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেছেন, পুলিশের ওপর নির্বাচন কমিশনের কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই। আপনিও কি তা-ই মনে করেন?