মঙ্গলবার, ১৭ জুলাই ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বুধবার, ০৯ আগস্ট, ২০১৭, ০৩:০২:০৪

জিয়া অরফানেজ মামলায় খালেদার স্থায়ী জামিন

জিয়া অরফানেজ মামলায় খালেদার স্থায়ী জামিন

ডেস্ক রির্পোটঃ-দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে স্থায়ী জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।
এ বিষয়ে জারি করা রুলের চূড়ান্ত শুনানি নিয়ে বুধবার (৯ আগস্ট) বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিমের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দেন।
আদালতে খালেদা জিয়ার পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এ জে মোহাম্মদ আলী। সঙ্গে ছিলেন আইনজীবী জাকির হোসেন ভূইয়া। দুদকের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী খুরশীদ আলম খান।
খুরশিদ আলম খান সাংবাদিকদের বলেন, ‘এ মামলায় ২০০৮ সালে খালেদা জিয়া জামিন দিয়ে রুল জারি করেন। কিন্তু দুদককে তখন পক্ষভুক্ত করা হয়নি। সম্প্রতি পক্ষভুক্ত হতে দুদক আবেদন করার পর হাইকোর্ট তা মঞ্জুর করে। পরে এ রুলের ওপর চূড়ান্ত শুনানি শেষে রুল মঞ্জুর করেন আদালত। অর্থাৎ এ মামলায় খালেদা জিয়া স্থায়ী জামিন পেয়েছেন। তবে জামিনের অপব্যবহার করলে বিচারিক আদালত তার জামিন বাতিল করতে পারবে।
উল্লেখ্য, ২০০৮ সালের ৩ জুলাই রমনা থানায় জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলা দায়ের করে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এতিমদের সহায়তা করার উদ্দেশে একটি বিদেশি ব্যাংক থেকে আসা ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৭১ টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ এনে এ মামলা দায়ের করা হয়।
এ মামলায় খালেদা জিয়াসহ আসামি মোট ছয়জন।
অন্য পাঁচ আসামি হলেন, বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ও খালেদা জিয়ার বড় ছেলে তারেক রহমান, মাগুরার সাবেক এমপি কাজী সালিমুল হক কামাল ওরফে ইকোনো কামাল, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক সচিব ড. কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগ্নে মমিনুর রহমান।
এ মামলায় সাক্ষ্য দিয়েছেন ৩২ জন সাক্ষী। জামিনে থাকা দুই আসামি কাজী সালিমুল হক কামাল ওরফে ইকোনো কামাল ও শরফুদ্দিন আহমেদ আত্মপক্ষ সমর্থন করে আদালতে লিখিত বক্তব্য জমা দিয়েছেন।
ড. কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান মামলার শুরু থেকেই পলাতক।

এই বিভাগের আরও খবর

  খালেদা জিয়ার সঙ্গে কাউকেই দেখা করতে দেয়া হচ্ছে না-মির্জা ফখরুল

  সরকার এমন জায়গায় গেছে, আর ফিরতে পারবে না-মির্জা ফখরুল

  খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে নির্বাচন হতে দেয়া হবে না-বিএনপি

  প্রমাণ হবে খালেদার দণ্ডের নেপথ্যে ভারতীয় হাইকমিশন-রিজভী

  গণবিস্ফোরণে সরকারের পতন হবে-মওদুদ

  খালেদা জিয়ার মামলা নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত সরকার-রিজভী

  খালেদা জিয়াকে সাজানো মামলায় বন্দি করে রাখা হয়েছে-রিজভী

  জাতীয় নির্বাচনে অংশ না নিলে অস্তিত্ব সংকটে পড়বে বিএনপি-তোফায়েল

  রাজাকার-আলবদরসহ স্বাধীনতা বিরোধীদের তালিকা করতে হবে-নৌমন্ত্রী

  সরকারের বিদায়ের কাউন্টডাউন শুরু হয়েছে-রুহুল কবির রিজভী

  খালেদা জিয়া এলে রাজনীতিতে নতুন জোয়ারের সৃষ্টি হবে-মওদুদ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, চলমান মাদকবিরোধী অভিযানে তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে কাজ হচ্ছে, এখানে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। বাস্তবে তা ঘটবে বলে মনে করেন?