শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ,২০১৯

Bangla Version
  
SHARE

মঙ্গলবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯, ০৮:৪৯:২০

সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা শেষে এরশাদ দেশে ফিরেছেন

সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা শেষে এরশাদ দেশে ফিরেছেন

ডেস্ক রিপোর্টঃ-জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা এইচ এম এরশাদ চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরেছেন। সোমবার রাত ১০টা ৪০ মিনিটে তিনি হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান।
বিমান থেকে নেমে তিনি হুইল চেয়ারে করে ভিআইপি লাউঞ্জে আসেন। তিনি হেটেই গাড়িতে ওঠেন। এরপর তিনি সরাসরি বারিধারার বাসায় চলে যান। এসময় গাড়িতে ছিলেন জি এম কাদের ও এরশাদ পুত্র এরিক। গত ২০ জানুয়ারি এরশাদ চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে যান।
এরশাদ পত্নী ও জাপার সিনিয়র কো-চেয়ারপার্সন রওশন এরশাদ বিমানবন্দরে স্বাগত জানাতে উপস্থিত ছিলেন। তিনি এরশাদের মাথায় হাত বুলিয়ে দেন। এরশাদও রওশনের মাথায় হাত বুলিয়ে দেন। এসময় তাদের দুইজনকে মৃদুস্বরে কথা বলতে দেখা যায়।
এরশাদকে স্বাগত জানাতে বিমানবন্দরে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জি এম কাদের, ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, এ বি এম রুহুল আমীন হাওলাদার, কাজী ফিরোজ রশিদ, জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, মসিউর রহমান রাঙ্গা, সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা, এস এম ফয়সাল চিশতী, এ টি ইউ তাজ রহমান, সালমা ইসলাম, ব্যারিস্টার দিলারা খন্দকার, মাসুদা এম রশিদ চৌধুরী, নাজমা আক্তার প্রমুখ।

এই বিভাগের আরও খবর

  রাজনীতিতে বিশাল শূন্যতা বিরাজ করছে-জিএম কাদের

  খালেদা জিয়াকে পাকিস্তানি সেনাদের খাতিরের কারণ কি-ড. হাছান মাহমুদ

  আন্দোলন ছাড়া বেগম জিয়াকে মুক্ত করার বিকল্প নেই-ফখরুল

  বঙ্গবন্ধুর খুনিদের ফিরিয়ে আনতে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা জোরদার করা হয়েছে-ওবায়দুল কাদের

  খালেদার স্বাস্থ্য নিয়ে বিএনপি প্রহসন করছে-তথ্যমন্ত্রী

  সরকারের মন্ত্রীদের মস্তিষ্ক পরীক্ষা করা দরকার-রিজভী

  ডেঙ্গুকে যারা গুজব বলেছিল তারাই এখন বলছে ভয়াবহ সংকট-রাশেদ খান মেনন

  সবাই করছে ডেঙ্গু মোকাবিলা, আর বিএনপি নতুন নির্বাচনের অমূলক দাবি-ড. হাছান মাহমুদ

  ডেঙ্গু মহামারি আকার নিয়েছে, জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলুন-নোমান

  আগস্ট আসলেই পরাজিত অপশক্তি ষড়যন্ত্র শুরু করে-ওবায়দুল কাদের

  ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষকে দুই গৃহকর্মীই হত্যা করেছে

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডেঙ্গুতে মৃত্যুর সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তির প্রেক্ষাপটে আইইডিসিআরের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলছেন, মৃত্যুর ঘটনাগুলো ‘রিভিউ’ করার কোনো প্রয়োজন নেই, চিকিৎসকদের কথাই যথেষ্ট। আপনি কি তাকে সমর্থন করেন?