রবিবার, ২১ অক্টোবর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

সোমবার, ১৫ অক্টোবর, ২০১৮, ০২:১১:১৬

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের সংশোধন চেয়ে রাস্তায় সম্পাদকরা

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের সংশোধন চেয়ে রাস্তায় সম্পাদকরা

ডেস্ক রিপোর্টঃ-ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিতর্কিত ৯টি ধারা সংশোধনের দাবিতে মানববন্ধন করেছেন বিভিন্ন পত্রিকার সম্পাদকরা। সোমবার (১৫ অক্টোবর) বেলা ১১টা থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে তারা মানববন্ধন করেন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সম্পাদক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহফুজ আনাম। তিনি  সম্পাদক পরিষদের বিভিন্ন দাবি নিয়ে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমান, কালের কণ্ঠের সম্পাদক ইমদাদুল হক মিলন, ডেইলি নিউ এজের সম্পাদক নুরুল কবির, দৈনিক ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত, দৈনিক সংবাদের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক খন্দকার মনিরুজ্জামান, বনিক বার্তার সম্পাদক দেওয়ান হানিফ মাহমুদ, দৈনিক সমকালে ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মোস্তাফিজ শফি, দৈনিক মানবজমিনের প্রধান সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী প্রমুখ।
মানববন্ধনে সম্পাদক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডেইলি স্টার সম্পাদক মাহফুজ আনাম বলেন, ‘আমরা ডিজিটাল আইনের বিরুদ্ধে নই। আমরা এই আইনের বিশেষ কতকগুলো ধারার সংশোধন দাবি করছি। আমরা চাই-আগামী সংসদ অধিবেশনে এই আইনটি সংশোধনের মাধ্যমে স্বাধীন সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিশ্চিত করা হোক। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ৮, ২১, ২৫, ২৮, ২৯, ৩১, ৩২, ৪৩ ও ৫৩ ধারা অবশ্যই সংশোধন করতে হবে।’

এই বিভাগের আরও খবর

  বিভক্ত কমিশন দিয়ে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়-ফখরুল

  দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গঃ বি.চৌধুরী-মান্নান-মাহীকে অব্যাহতি দিয়ে বিকল্পধারার নতুন কমিটি

  খালেদা জিয়ার মামলার রায় আগেই লেখা হয়েছে-নজরুল

  দু’এক জন চলে গেলে ২০ দলীয় জোটে প্রভাব পড়বে না-রিজভী

  কামালের সঙ্গে যাওয়ার পর বিএনপি জোটে ভাঙন

  গ্রেনেড হামলার রায় বাতিল করে নিরপেক্ষ পুনঃতদন্তের মাধ্যমে বিচার দাবি বিএনপির

  খালেদার বিরুদ্ধে জিয়া চ্যারিটেবল মামলার রায় ২৯ অক্টোবর

  ঐক্যফ্রন্টের দাবির প্রতি একাত্মতা ঘোষণা করেছে ২০ দলীয় জোট

  ঐক্যে থাকতে দুই শর্ত বি. চৌধুরীর

  বি চৌধুরী ও কামালের ঐক্যে ফাটল

  সংকট কাটাতে ভোটে যাবে বিএনপিঃ নির্বাচনের প্রস্তুতির নির্দেশ, তফসিলের পর নামবেন নেতা-কর্মীরা

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, গুজব সনাক্তকরণে যে সেল করা হয়েছে, তা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মতপ্রকাশ নিয়ন্ত্রণ বা সোশ্যাল মিডিয়া পুলিশিং করবে না। আপনি কি এতে আশ্বস্ত?