বুধবার, ১৩ ডিসেম্বর ,২০১৭

Bangla Version
SHARE

বুধবার, ১১ অক্টোবর, ২০১৭, ১১:০৪:৩০

কূটনীতিকদের সঙ্গে বিএনপির বৈঠকে বিচার বিভাগের পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ

কূটনীতিকদের সঙ্গে বিএনপির বৈঠকে বিচার বিভাগের পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ

ঢাকা : আজ বিকেলে কূটনীতিকদের সঙ্গে অনুষ্ঠিত বৈঠকে দেশের বিচার বিভাগের বর্তমান পরিস্থিতি অবহিত করেছে বিএনপি। জানা গেছে, বিএনপি নেতারা বৈঠকে বিচারবিভাগের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ জানিয়েছেন। তারা বলেছেন, প্রধান বিচারপতির ছুটির আবেদনে এতোগুলো ভুল প্রমাণ করে যে, তাকে জোর করে ছুটিতে পাঠানো হচ্ছে। তিনি এটা চাইছেন না। তিনি পূজাতে যাচ্ছেন, অস্ট্রেলিয়ান হাই কমিশনে যাচ্ছেন, ডাক্তারের কাছে যাচ্ছেন। তাকে যতটা অসুস্থ বলা হচ্ছে, তেমনটা মনে হচ্ছে না। উদ্বেগ জানিয়ে বিএনপি নেতারা বলেছেন, এতে করে  বাংলাদেশের স্বাধীন বিচারব্যবস্থা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। ক্ষমতার বিকেন্দ্রীকরণ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। সরকার সমস্ত ক্ষমতা কুক্ষিগত করছে বলেও অভিযোগ করা হয়।
বৈঠকে ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, নরওয়ে, ডেনমার্ক, কানাডা, চীন, ভারত, তুরস্ক, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, জার্মানি, অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, মরক্কো, নেপাল, ইন্দোনেশিয়া, মালদ্বীপসহ ১৬টি দেশের কূটনীতিক এবং আন্তর্জাতিক কয়েকটি সংগঠনের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।
বৈঠকে বিএনপির প্রতিনিধি দলে ছিলেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ড. আবদুল মঈন খান, বিএনপি নেতা সাবিহউদ্দিন আহমেদ, রিয়াজ রহমান, ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, অ্যাডভোকেট জয়নাল আবেদিন, অ্যাডভোকেট মাসুদ আহমেদ তালুকদার ও ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা।

এই বিভাগের আরও খবর

  বিচার বিভাগ আবারও প্রশাসনের নিয়ন্ত্রণে চলে গেলো-মির্জা ফখরুল

  বিএনপি-জামায়াতের ষড়যন্ত্র প্রতিহত করবে ১৪ দল-নাসিম

  ট্রাম্পের ঘোষণায় আমিও উদ্বিগ্ন-খালেদা জিয়া

  সরকার বিকারগ্রস্ত হয়ে পড়েছে-খালেদা

  ক্ষমা না চাইলে আইনানুগ ব্যবস্থা-প্রধানমন্ত্রীকে ফখরুল

  'হাঙ্কি-পাঙ্কি’ করে লাভ নেই, নিরপেক্ষ নির্বাচন দিন-মির্জা ফখরুল

  খালেদাকে আদালতের মাধ্যমেই নির্দোষ প্রমাণ করতে হবে-হানিফ

  জনরোষ চাপা দিতেই পাইকারি গ্রেফতার-খালেদা জিয়া

  খালেদা জিয়ার গ্রেফতারি পরোয়ানার প্রতিবাদে রবিবার বিক্ষোভ

  বাম দলের হরতালে বিএনপির সমর্থন

  যত ষড়যন্ত্র হোক নির্বাচনে অংশ নেবে বিএনপি-খন্দকার মোশাররফ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

পুলিশের আইজিপি এ কে এম শহিদুল হক বলেছেন, ‘দেশকে জঙ্গি, মাদক ও সন্ত্রাসমুক্ত করতে হলে পুলিশের পাশাপাশি জনগণকে কাজ করতে হবে।’ আপনিও কি তাই মনে করেন?