বুধবার, ২৩ জানুয়ারী ,২০১৯

Bangla Version
SHARE

রবিবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৮, ০৮:২৭:২৪

রাঙ্গামাটির ভেদভেদীতে ভ্রাম্যমান আদালতঃ বনলতা বেকারীকে ৫ হাজার ও ১৫ দিনের কারাদন্ড

রাঙ্গামাটির ভেদভেদীতে ভ্রাম্যমান আদালতঃ বনলতা বেকারীকে ৫ হাজার ও ১৫ দিনের কারাদন্ড

রাঙ্গামাটিঃ-নোংরা পরিবেশে খাবার উৎপাদনের দায়ে রাঙ্গামাটি শহরের ভেদভেদী এলাকায় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হয়। শনিবার (২১ অক্টোবর) বিকাল ৪টার দিকে আকষ্মিক এই ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন। জেলা প্রশাসনের বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো: রুহুল কুদ্দুস।
তথ্য সুত্রে জানা গেছে, রাঙ্গামাটি শহরের ভেদভেদী এলাকায় জেলা প্রশাসনের জেলা প্রশাসনের বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো: রুহুল কুদ্দুস এর নেতৃত্বে ভেদভেদী এলাকায় বিভিন্ন দোকান ও বেকারীতে আকষ্মিক অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা কালে ভেদভেদিস্থ বনলতা বেকারীতে তৈরিকৃত খাদ্যদ্রব্য মেঝেতে অবহেলা অযতেœ ফেলে রেখে তা ক্রেতাদের বিক্রি করা হচ্ছে।
যা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন-২০০৯ এর ৫৩ ধারায় অপরাধ করেছেন। এতে বেকারীর মালিককে বিজ্ঞ ম্যাজিস্ট্রেট ৫ হাজার টাকা অর্থদন্ড, অনাদায়ে ১৫ দিনের কারাদন্ডের আদেশ প্রদান করা হয়।
উক্ত অভিযান পরিচালনাকালে রাঙ্গামাটি সদর উপজেলার স্যানিটারি ইন্সপেক্টর মিসেস নাসিমা আক্তার খানম, জেলা প্রশাসনের পেশকার মো: নজরুল ইসলামসহ জেলা পুলিশের সদস্যগণ উপস্থিত থেকে সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করেন।

এই বিভাগের আরও খবর

  দেশে ধনী-গরীবের বৈষম্যে রেকর্ড

  পদ্মা সেতুর জাজিরা প্রান্তে বসলো ষষ্ঠ স্প্যান

  প্রকল্পে গতি আনতে নজরদারি বাড়ানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

  আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুলের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক

  চালু হচ্ছে আইএমইআই ডাটাবেজঃ অবৈধ মোবাইলের দিন শেষ!

  সর্বোচ্চ সততা ও আন্তরিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

  জনগণের বিশ্বাস ও আস্থার মর্যাদা দেব-প্রধানমন্ত্রী

  স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে গিয়ে যেসব নির্দেশনা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

  অতীতের সরকারগুলোর মদদে দেশ জঙ্গিবাদের কবলে পড়েছিল-প্রধানমন্ত্রী

  নির্বাচনী অঙ্গীকার অক্ষরে অক্ষরে পালন করবে আওয়ামী লীগ-প্রধানমন্ত্রী

  ভারত থেকে ১৩০০ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

বৈষম্য কমাতে নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য পেনশন ব্যবস্থা চালুর পরামর্শ দিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান। এটা করা হলে বৈষম্য কমবে বলে মনে করেন?