শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ,২০১৯

Bangla Version
SHARE

রবিবার, ০৪ আগস্ট, ২০১৯, ০৯:১২:২২

খাগড়াছড়ির রামগড়ে এক রাতে ৩ বাড়িতে ডাকাতি, দায়ের কোপে আহত-৪

খাগড়াছড়ির রামগড়ে এক রাতে ৩ বাড়িতে ডাকাতি, দায়ের কোপে আহত-৪

রামগড়ঃ--রামগড় পৌরসভার পাশাপাশি দুই এলাকা পূর্ব চৌধুরিপাড়া ও কালাডেবায় শনিবার (৩ আগস্ট) গভীর রাতে দুই বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। ওই রাতে একই এলাকায় আরেকটি বাড়িতে ডাকাতির চেষ্টা করে ব্যর্থ হয় ডাকাত দল। ডাকাতরা দুটি বাড়ি থেকে নগদ এক লাখ ৬৫ হাজার টাকা ও প্রায় ৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার লুট করে নিয়ে গেছে। এ সময় ডাকাতদের দায়ের কোপে একই পরিবারের চারজন আহত হয়েছেন।
পুলিশ ও ডাকাতির শিকার পরিবারের সদস্যরা জানান, শনিবার রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে পূর্ব চৌধুরিপাড়া এলাকার বাসিন্দা মফিজুর রহমানের বাড়িতে হানা দেয় ডাকাত দল। তারা ঘরের টিনের বেড়া খুলে ভেতরে প্রবেশ করে। এ সময় গৃহকর্তার দুই ছেলে বেলাল হোসেন (৩০) ও ইমাম হোসেন (১৭) ডাকাতদের দেখে চিৎকার শুরু করলে পাশের রুম থেকে বাবা ও মা ছুটে আসেন। এ সময় গৃহকর্তা মফিজ ও বড় ছেলে বেলাল একজন ডাকাতকে ধরে ফেললে অন্যরা এসে ধারালো দা, লোহার রড ইত্যাদি দিয়ে ঘরের সবাইকে এলোপাথারিভাবে আঘাত করতে থাকে। এক পর্যায়ে ডাকাতরা টাকা পয়সা নিয়ে পালিয়ে যায়।
পরে তাদের চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে এসে ডাকাতদের দায়ের কোপে আহত মফিজুর রহমান (৫০), স্ত্রী হোসনে আরা বেগম (৪৮), ছেলে বেলাল হোসেন (৩০) ও ইমাম হোসেনকে (১৭) রাতেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় গৃহকর্তা মফিজুর রহমানকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। হাসপাতালের চিকিৎসক জানান, তার অবস্থা আশংকাজনক।
আহত বেলাল জানান, ছয়জন ডাকাতের মুখ গামছা দিয়ে বাধা ছিল। তারা ঘরে ঢুকেই বিদ্যুতের মেইন সুইচ বন্ধ করে দেয়। কয়দিন আগে তারা এক লাখ ৩০ হাজার টাকায় দুটি গরু বিক্রি করেন। ডাকাতরা সব গুলো টাকা নিয়ে বৈদ্য টিলা এলাকার দিকে পালিয়ে যায়।
এদিকে, একই রাতে পূর্ব চৌধুরিপাড়ার অদূরে কালাডেবায় সিরাজ কোম্পানির বাড়িতে ডাকাতি ঘটনা ঘটে। গৃহকত্রী রহিমা বেগম (৪৫) জানান, শনিবার রাতে তারা কেউ ঘরে ছিলেন না। ডাকাতরা ঘরের দরজার ছিটকিনি ভেঙ্গে ভেতরে ঢোকে। তারা একাধিক রুমের আলমিরা, শোকেস, অয়্যারড্রপের তালা ভেঙ্গে ৩৫ হাজার টাকা, প্রায় ৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার, জমিজমার দলিলপত্র প্রভৃতি লুট করে নিয়ে যায়।
এদিকে, সিরাজ কোম্পানির বাড়ি হতে কয়েক গজ দুরের নুরুল আমিন মেম্বারের বাড়িতেই হানা দেয় ডাকাতরা। কিন্তু ঘরের দরজা ভাঙ্গতে না পেরে তারা ব্যর্থ হয়। গৃহকর্তা নুরুল আমিন মেম্বার জানান, ডাকাতরা দরজা ভাঙ্গার চেষ্টা করলে তাদের ঘুম ভাঙ্গে। এ সময় ডাকাতরা নিজেদের পুলিশ পরিচয় দিয়ে দরজা খুলতে বলে। গৃহকর্তা জানালা খুলে তাদের দেখে ডাকাত ডাকাত বলে চিৎকার শুরু করেন। পরে ডাকাতরা পালিয়ে যায়।
রামগড় থানার অফিসার ইনচার্জ তারেক মো. আব্দুল হান্নান জানান, ডাকাতদের ধরতে রাত থেকেই পুলিশ অভিযান শুরু করেছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ছয়জনকে আটক করা হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  আগস্ট মাসে আসলে বঙ্গবন্ধু‘র খুনিরা বেপরোয়া হয়ে উঠে-কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি

  অবৈধ সরকারের পতন ঘটিয়ে বেগম জিয়াকে কারামুক্ত করা হবে-ওয়াদুদ ভূইয়া

  খাগড়াছড়ি আধুনিক জেলা সদর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সাথে সনাক- এর মতবিনিময় সভা

  খাগড়াছড়িতে গ্রেনেট হামলাকারীদের শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

  খাগড়াছড়িতে ৭ হত্যাকান্ডঃ এক বছরেও শেষ হয়নি তদন্ত কার্যক্রম

  বঙ্গবন্ধুর ছিলেন অসম্প্রদায়ীক চেতনার বিশ্বাসী-নির্মলেন্দু চৌধুরী

  খাগড়াছড়িতে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলী কামাল হোসেন’র অফিস দখলের চেষ্টার অভিযোগের বিরুদ্ধে মামলা

  খাগড়াছড়িতে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে কালো পতাকা মিছিল ও সমাবেশ

  রামগড়ে ফের ডাকাতি, স্বেচ্ছাসেবকলীগের নেতাসহ আটক-৪

  দুষ্ককৃতিকারীরা বঙ্গবন্ধুকে মেরেছে! তার স্বপ্ন মারতে পারে নাই-আলহাজ্ব কাশেম

  বঙ্গবন্ধু বাকী খুনিদের দেশে ফিরিয়ে এনে, ফাঁসি‘র রায় কার্যকর করা প্রধান কাজ-কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডেঙ্গুতে মৃত্যুর সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তির প্রেক্ষাপটে আইইডিসিআরের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলছেন, মৃত্যুর ঘটনাগুলো ‘রিভিউ’ করার কোনো প্রয়োজন নেই, চিকিৎসকদের কথাই যথেষ্ট। আপনি কি তাকে সমর্থন করেন?