মঙ্গলবার, ২৩ অক্টোবর ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

শনিবার, ০৪ নভেম্বর, ২০১৭, ০৮:২৯:৩৯

রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া মিয়ানমারকেই শুরু করতে হবে-যুক্তরাষ্ট্র

রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া মিয়ানমারকেই শুরু করতে হবে-যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ-মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের জনসংখ্যা, শরণার্থী ও অভিবাসন বিষয়ক ভারপ্রাপ্ত সহকারী মন্ত্রী সাইমন হেনশ বলেছেন, মিয়ানমারকেই রোহিঙ্গাদের নিরাপদ প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া শুরু করতে হবে। এটাই সংকটের সর্বোত্তম সমাধান।
শনিবার (৪ নভেম্বর) রাজধানীর গুলশানে আমেরিকান ক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। বাংলাদেশ সফররত এক প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে রয়েছেন ভারপ্রাপ্ত এই সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী। ঢাকার সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র হিথার নওয়ার্ট ও ঢাকায় দেশটির রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাট উপস্থিত ছিলেন।
সাইমন হেনশ বলেন, রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে নেপিদোর ওপর চাপ অব্যাহত রেখেছে যুক্তরাষ্ট্র। মিয়ানমার এ বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে আলোচনার উদ্যোগ নিচ্ছে। যা খুব গুরুত্বপূর্ণ। রাখাইনের এই সমস্যা একটি জটিল ও মারাত্মক পরিস্থিতি তৈরি করেছে। দুই মাসে ছয় লাখ মানুষ বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে। বাংলাদেশ এই মানুষগুলোকে আশ্রয় দিয়েছে।
তিনি বলেন, পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসনের নির্দেশনা অনুযায়ী রোহিঙ্গাদের পরিস্থিতি দেখতে আমরা এখানে এসেছি। সামগ্রিকভাবে রোহিঙ্গা পরিস্থিতি নিয়ে পর্যালোচনা করছে যুক্তরাষ্ট্র।
বাংলাদেশ সফর শেষে মার্কিন প্রতিনিধিদলটি একইভাবে মিয়ানমার সফর করবে। দেশটির কর্তৃপক্ষের কাছে তারা রাখাইনে শর্তহীনভাবে ত্রাণ সংস্থা ও সংবাদকর্মীদের প্রবেশের অনুমতি চাইবে। এছাড়া বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের সসম্মানে ও নিরাপদে রাখাইনে প্রত্যাবাসন-প্রক্রিয়া নিয়ে মিয়ানমারের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলবেন তারা।
উল্লেখ্য, গত ২৪ আগস্ট রাতে মিয়ানমারের রাখাইনে পুলিশ ফাঁড়িতে অজ্ঞাত বিদ্রোহীদের হামলার ঘটনায় মিয়ানমার সরকার সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা মুসলিমদের দায়ী করে। তাদের ওপর নির্যাতন ও গণহত্যা চালাতে থাকে। পরে জীবন বাঁচাতে ৬ লাখের বেশি রোহিঙ্গা সেখান থেকে পালিয়ে এসে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়।

এই বিভাগের আরও খবর

  তাইওয়ানে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনা, নিহত-২২

  নাইজেরিয়ায় সাম্প্রদায়িক দাঙ্গায় নিহত-৫৫

  ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের দুর্ঘটনার দায় নিচ্ছে না কেউ, ক্ষোভে ফুঁসছে অমৃতসর

  ১০-১৫ সেকেন্ডেই ৩০০ মানুষের জমায়েত পরিণত হয় ছিন্ন-ভিন্ন দেহের স্তুপে

  রোহিঙ্গা ইস্যুতে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে শুনানির অনুরোধ

  নিউ ইয়র্ক টাইমসের অনুসন্ধানঃ ফেসবুকে রোহিঙ্গা নিধনে উসকানি দিয়েছিল মিয়ানমার সেনাবাহিনী

  হারিকেন মাইকেলের আঘাতে নিহত কমপক্ষে-৩০

  মিয়ানমারে শান্তি আলোচনা শুরু

  চীনের সঙ্গে ৫০০ মিলিয়ন ডলারের প্রকল্প বাতিল মিয়ানমারের

  নেপালে নিহত পর্বতারোহীদের সন্ধানে অভিযান শুরু

  নেপালে তুষার ঝড়ে ৮ পর্বতারোহীর প্রাণহানি

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, গুজব সনাক্তকরণে যে সেল করা হয়েছে, তা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মতপ্রকাশ নিয়ন্ত্রণ বা সোশ্যাল মিডিয়া পুলিশিং করবে না। আপনি কি এতে আশ্বস্ত?