বুধবার, ১৫ আগস্ট ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ০৫ এপ্রিল, ২০১৮, ১২:৪২:৫৪

২৫তম মৃত্যুবার্ষিকী আজঃ বলিউড যাকে আজও মনে করে

২৫তম মৃত্যুবার্ষিকী আজঃ বলিউড যাকে আজও মনে করে

বিনোদন ডেস্কঃ-নব্বই দশকের প্রথমভাগে উল্কার মতো বলিউডে এসেছিলেন, আবার উল্কার মতোই চলে যান। আজও তার কথা মনে করে চলচ্চিত্র বোদ্ধারা। যার নাম উচ্চারিত হলেই অনেকটা হতাশা ও আক্ষেপ ভেসে উঠে বলিউড পাড়ার লোকজনের চোখে-মুখে। যার কথা বলছি তিনি আর কেউ নন, দিব্যা ওম প্রকাশ ভারতীয়। অর্থাৎ দিব্যা ভারতী। বৃহস্পতিবার (৫এপ্রিল) তার ২৫তম মৃত্যুবার্ষিকী। ১৯৯৩ সালের ৫ এপ্রিল মাত্র ১৯ বছর বয়সে দুনিয়ার মায়া ছেড়ে চলে যান ওই সময়ের অন্যতম আলোচিত এই অভিনেত্রী।
বর্তমান প্রজন্মের অনেক তরুণ-তরুণী ও কিশোর-কিশোরী সেভাবে নাও চিনতে পারে তাকে। কারণ দিব্যা গত হয়েছে ২৫ বছর আগে। দিব্যা সম্পর্কে জানতে হলে একটু পেছনের দিকে তাকাতে হবে। ১৯৯২ সালে ‘বিশ্বাত্মা’ ছবির মাধ্যমে বলিউডে পা রাখেন দিব্যা। এর আগে ১৯৯০ সালে ‘বাবলি রাজা’ ছবি দিয়ে রুপালি জগতে তার বিচরণ ঘটে। অর্থাৎ এই তেলেগু ছবির মাধ্যমে তার যাত্রা শুরু হয়। যদিও বিদ্যার জন্ম মুম্বাইয়ের জুহুতে। শুধু বলিউড নয়, সেই সময় একের পর এক হিট ছবি উপহার দেন তেলেগু ইন্ডাস্ট্রিতে। অভিনয় করেন ‘নিলা পেনি’, ‘না ইল্লে না সরগম’, ‘রাউডি আল্লাডু’, ‘এসেম্বলি রাউডি’ ও ‘ধর্মাক্ষেত্রম’ ছবিতে। তেলেগু দর্শকদের কাছে এতটাই জনপ্রিয় হয়ে উঠে যে, দিব্যার নামে তামিলনাড়ুতে মন্দির উদ্বোধন করা হয়।
১৯৯২ সালে বলিউডের ‘বিশ্বাত্মা’ ছবিতে বিদ্যার বিপরীতে ছিলেন সানি দেওল। সেই বছরের ২ জানুয়ারি মুক্তি পায় এ ছবিটি। ছবিটি আলোচনায় চলে আসে তার অভিনয় ও গানগুলো দিয়ে। বিশেষ করে ‘সাত সামুন্দর’ গানটি দর্শকদের হৃদয়ে আজও জায়গা করে আছে। এমনকি এ গানটির সুর ও কথা নকল করে বাংলাদেশের একটি ছবিতে সালমান শাহ ও সোনিয়ার একটি গানে চিত্রায়িত হয়। গানটি ছিল ‘নীল সাগর পার হয়ে’। এরপর একের পর এক ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হতে থাকেন দিব্যা। প্রখ্যাত চলচ্চিত্রকার লরেন্স ডি সুজার রোমান্টিক ছবি ‘দিল কিয়া কাসুর’র মধ্যে তার বিপরীতে থাকেন নায়ক পৃথবী। ১৯৯২ সালের মার্চে মুক্তি পাওয়া ডেভিড ধাওয়ানের ‘শোলে ওর শাবনাম’। এতে তার বিপরীতে ছিলেন গোবিন্দ। কিন্তু টার্নিং পয়েন্ট ছিল শাহরুখ খানের বিপরীতে ‘দিওয়ানা’ ছবিটি। সেই বছরের অন্যতম ব্যবসাসফল ছবি হয় এটি। শাহরুখ খানও পুরস্কার আদায় করে নেন সেরা অভিষেক নায়ক হিসেবে। এ ছবিটির যে গানটি এখনো সবাইকে আন্দোলিত করে সেটি হলো ‘অ্যায়সে দিওয়ানে হি...।’
এর পরপরই একচেটিয়া আধিপত্য বিস্তার শুরু হয় দিব্যার। ১৯৯২ এবং ১৯৯৩ এর প্রথমার্ধে তিনি ১৪টি হিন্দি ছবিতে অভিনয় করেন যা আজ পর্যন্ত বলিউডে অভিষেক হিসেবে তার রেকর্ড হয়ে আছে।
জীবিতাবস্থায় দিব্যার সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত ছবি ‘খাতরিয়া’। এছাড়া মৃত্যুর পর আরও ৩টি ছবি মুক্তি পায় তার। এর মধ্যে একটি ছবিতে তার চরিত্রটি দৃশ্যায়ন করেন অভিনেত্রী রাম্বা। এই ৩টি ছবি অন্য অভিনেত্রীকে দিয়ে ডাবিং করানো হয়। এছাড়া তার হাতে ছিল আরও বেশ কয়েকটি ছবি। যেমন : লাডলা (মৃত্যুর পর শ্রীদেবীকে নেওয়া হয় অনিল কাপুরের বিপরীতে), মোহরা (মৃত্যুর পর রাভিনাকে নেওয়া হয় অক্ষয় কুমারের বিপরীতে), আন্দোলন (তার মৃত্যুর পর রাভিনাকে নেওয়া হয় সঞ্জয় দত্তের বিপরীতে)।
১৯৯৩ সালের ৫ এপ্রিল রাত ১১টা ৪৫ মিনিটে মুম্বাইয়ের তুলসি অ্যাপার্টমেন্টের ৫ তলার ব্যালকনি থেকে পড়ে যান। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তার। ২ দিন পর অনুষ্ঠিত হয় তার শেষকৃত্য। বলিউডের বড় বড় হস্তীরা যোগ দেন তার শেষকৃত্যে। অমরেশপুরি, হেমা মালিনী, ববিতা, কারিশমা কাপুর, সাইফ আলী খান, সঙ্গিতা বিজলানী, শ্রীদেবী, মনিষা কৈরালা ও আশা পারেখের মতো প্রখ্যাত তারকাদের দেখা যায় সেখানে। কিন্তু দিব্যার মৃত্যু নিয়ে থেকে যায় নানা কৌতূহল ও প্রশ্ন।
কেউ কেউ বলেছেন, এটি দুর্ঘটনা নয়, হয়তো হত্যা। এমনকি তার স্বামী সাজিদ নাদিওয়ালার বিরুদ্ধেও অভিযোগ ওঠে। কেউ কেউ আবার আঙ্গুল তুলেন মাফিয়া ডনদের দিকে। বাদ যাননি সমসাময়িক মাধুরী দীক্ষিত, জুহি চাওলা ও মনিষা কৈরালার মতো নায়িকারা। সমালোচকরা বলতেন, দিব্যার মৃত্যুতে এ তিন নায়িকার স্থান পুনরায় পাকা হয়। বিষয়টি সত্য-মিথ্যা যাই হোক না কেন, সে সময় যথেষ্ট বেগবান হয় এ গুঞ্জনটি।
১৯৯৮ সালে মুম্বাই পুলিশের পক্ষ থেকে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিল করে বলা হয়, দিব্যার মৃত্যুটি ছিল দুর্ঘটনাজনিত। আমাদের দেশে প্রয়াত অভিনেতা সালমান শাহর মৃত্যু যে রকম রহস্যে ঘনীভূত, দিব্যার মৃত্যুটিও আজও সেই রকম।
দিব্যা ভারতী যে আজও কতটা জনপ্রিয় তা ২০১৫ সালের এক জরিপে আবারও প্রতীয়মান হয়েছে। ভারতের একটি কোম্পানি ইউটিউবের ওপর জরিপ চালায়। সেখানে দেখা যায় ৯০ দশকের যে গানগুলো মানুষ এখনো খোঁজে বা দেখে সেগুলোর মধ্যে দিব্যা ভারতীর গানগুলো অন্যতম। এসব গানের মাঝে দিব্যা ভারতী বেঁচে থাকবেন সেটাই ভক্তদের প্রত্যাশা।

এই বিভাগের আরও খবর

  বান্দরবানে ও যথাযথ মর্যাদায় পালিত হয়েছে ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস

  শোক র‌্যালী, পুষ্পমাল্য অর্পণের মধ্যে দিয়ে রাঙ্গামাটিতে জাতির জনকের শাহাদাৎ বার্ষিকী পালিত

  দীর্ঘ ৩৬ বছর ধরে দৈনিক গিরিদর্পণ পার্বত্য অঞ্চলের মানুষের মুখপাত্র হিসাবে কাজ করেছে-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা

  খাগড়াছড়ি ও দীঘিনালায় বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্যে দিয়ে জাতীয় শোক দিবস পালিত

  জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর জীবন নিয়ে কাঠ চিত্র প্রদর্শনীর উদ্বোধন

  যথাযোগ্য মর্যাদায় বরকল, জুরাছড়ি, বিলাইছড়ি, লংগদু ও রাজস্থলীতে জাতীয় শোক দিবস পালন

  লামায় উপজেলা প্রশাসন ও আওয়ামীলীগের উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস পালিত

  রামগড়ে ভাবগম্ভীর পরিবেশে জাতীয় শোক দিবস পালিত

  বিএনপি-জামাত নির্বাচনের আগে নতুন প্রজম্মকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে-কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি

  সকলের সচেতনতাই পারে সকল প্রকার দূর্ঘটনা প্রতিরোধ করতে-বীর বাহাদুর এমপি

  থানচিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় শোক দিবস পালন



  0

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন