বুধবার, ১৮ জুলাই ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

মঙ্গলবার, ১০ জুলাই, ২০১৮, ১২:৫২:০৪

টেকনাফে নিখোঁজের ১৯ দিন পর রোহিঙ্গা ডাকাতের মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার

টেকনাফে নিখোঁজের ১৯ দিন পর রোহিঙ্গা ডাকাতের মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার

কক্সবাজারঃ-কক্সবাজারের টেকনাফে নিখোঁজ থাকার ১৯ দিন পর নাফনদী হতে এক রোহিঙ্গা ডাকাতের মৃতদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করেছে থানা পুলিশ। সোমবার (৯ জুলাই) বিকালে ওই লাশ উদ্ধার করা হয়।
জানা যায়, সোমবার বিকালে টেকনাফ মডেল থানার অপারেশন অফিসার রাজু আহমদের নেতৃত্বে একদল পুলিশ টেকনাফের হ্নীলা আনোয়ার প্রজেক্ট সংলগ্ন পূর্বে নাফনদী হতে ভাসমান অবস্থায় নয়াপাড়া শরানার্থী ক্যাম্পের ডি-ব্লকের এমআরসি নং-৬৩০২৩, শেড ১০১৭/৫ রোমের বাসিন্দা মৃত উলা মিয়ার ছেলে রশিদুল্লাহ (৪০) এর মৃতদেহ উদ্ধার করে। নিহতের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম ভাসমান অবস্থায় উদ্ধার করা মৃতদেহটি তার নিখোঁজ স্বামী রশিদুল্লাহর বলে সনাক্ত করেন। পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে পোস্ট মর্টেমের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছেন বলে টেকনাফ মডেল থানার অফিসার্স ইনচার্জ রনজিত কুমার বড়ুয়া নিশ্চিত করেন।
এদিকে নিহতের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম জানান, অনেক দিন আগে ক্যাম্পের বিদ্যমান অপরাধী চক্রের সাথে মিলে সে নানা অপরাধে জড়িয়ে পড়ে। মিয়ানমারে গড়ে উঠা আরসা গ্রুপের সাথে জোর করে সম্পৃক্ত করা হয়। প্রায় সাড়ে ৩ বছর হাজত বাসের পর ৫/৬ মাস আগে জামিনে মুক্ত হয়ে আসেন। ছেলেদের ভবিষ্যত কামনা করে কোন ধরনের অপরাধে সম্পৃক্ত হবেনা বলে জানিয়ে দেয়। এতে অপরাধী গ্রুপের সদস্যরা কৌশলে গত ২০ জুন রাতে রহিম উল্লাহ ও রশিদুল্লাহ দুই বন্ধুকে দাওয়াত খেতে নেওয়ার পর হতে নিখোঁজ হয়ে যায়। অবশেষে লোকজন ও পুলিশ মারফতে জানতে পেরে ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃতদেহটি সনাক্ত করি। অপর বন্ধু রহিমুল্লাহ এখনো নিখোঁজ রয়েছে।
এদিকে নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের স্বশস্ত্র সন্ত্রাসী গ্রুপের সদস্যরা মাদক চোরাচালান নিয়ন্ত্রণ, অপহরণ করে মুক্তিপণ আদায় বাণিজ্যে আধিপত্য বিস্তারের জের ধরে প্রায় সময় নানা ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনার সূত্রপাত হয়ে আসছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  টেকনাফে পাহাড়ী ছড়া থেকে রোহিঙ্গা যুবকসহ দু’মৃতুদেহ উদ্ধার

  টেকনাফের নাফনদীতে বিজিবি-বিজিপি পর্যায়ে ১০ম যৌথ সমন্বয় টহল

  কক্সবাজারে পাহাড়ি ঝোপে অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ

  টেকনাফে নিখোঁজের ১৯ দিন পর রোহিঙ্গা ডাকাতের মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার

  টেকনাফে ২শ ৮৬কোটি টাকার মাদকদ্রব্য ধ্বংস

  টেকনাফে পাহাড়ি সড়কে গণপরিবহনে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

  টেকনাফে এক মাসেই ৬ কোটি ৭৪ লাখ টাকার মাদক ও চোরাইপণ্য জব্দ

  টেকনাফে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ১৫ জনকে সাজা

  রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে যুক্তরাজ্য মিয়ানমারের উপর চাপ দিচ্ছে-মার্ক ফিল্ড

  ভারি র্বষণে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ২০০ টন চাল বরাদ্দ

  কক্সবাজারে মাদক বিক্রেতাকে ১৫ বছরের কারাদণ্ড

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, চলমান মাদকবিরোধী অভিযানে তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে কাজ হচ্ছে, এখানে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। বাস্তবে তা ঘটবে বলে মনে করেন?