শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

রবিবার, ০৭ অক্টোবর, ২০১৮, ০২:২৯:৪৫

পৃথক অভিযানে ২৯ কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধারঃ আটক-১

পৃথক অভিযানে ২৯ কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধারঃ আটক-১

মুহাম্মদ জুবাইর, টেকনাফঃ-টেকনাফে মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত থাকা স্বত্বেও থেমে নেই ইয়াবা পাচার। জলে-স্থলে সর্বত্রে ইয়াবার সয়লাব। যে দিকে যায় সে দিকে ইয়াবা আর ইয়াবা। প্রতিদিন বিভিন্ন সীমান্ত পয়েন্ট, উপকূল, প্রধান সড়কের বিভিন্ন চেকপোষ্টে লাখ লাখ পিস ইয়াবা আটক হচ্ছে। এমনকি পাচারকালে আইনশৃংখলা বাহিনীর চোখফাঁকি দিয়ে অভিনব কায়দায় পাচারকারীরা ইয়াবা নাফনদী কিংবা বঙ্গোপসাগরে ফেলে দেওয়ার ঘটনাও ঘটছে। এ অবস্থায় আইন-শৃংখলা বাহিনী ভাসমান ইয়াবার বস্তা আটকের ঘটনা ঘটেছে।
রোববারও সাগর তীরে ভাসমান অবস্থায় ২ লাখ ১০ হাজার পিসের ইয়াবার বস্তা উদ্ধার করেছে বিজিবি। ইতিমধ্যে পৃথকভাবে টেকনাফের ৬ জন মাদক পাচারকারী আইনশৃংখলা বাহিনীর সাথে কথিত বন্দুক যুদ্ধে নিহত হয়েছেন। কিন্তু ইয়াবা ব্যবসায়ী বড় বড় গডফাদাররা ঠিকই ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়ে গেছে। তবে তালিকাভূক্ত কয়েক রাঘববোয়ালদের বাড়ীতে অভিযান চালানো হয়েছে। এসময় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।
এদিকে ৭ অক্টোবর রবিবার এক দিনেই পৃথক অভিযানে নয় লাখ ১২ হাজার ৩৭৫ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী।
সকাল ৭টার দিকে বঙ্গোপসাগরের নোয়াখালী পাড়া সৈকত পয়েন্টে পুলিশ ও বিজিবি পৃথক অভিযান চালিয়ে একি সময় ওই স্থান হতে ৮ লাখ ১০ হাজার পিস ইয়াবার চালান উদ্ধার করে। তবে এসময় পাচারকারীদের কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। জব্দ ইয়াবার আনুমানিক মূল্য সাড়ে ২৪ কোটি টাকা।
অপরদিকে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে অভিযান চালিয়ে টেকনাফের ওলিয়াবাদ এলাকা থেকে ৮৩ হাজার ৬শ’ পিস ইয়াবাসহ সৈয়দ আলম ভুট্টো (৩৬) কে আটক করেছে র‌্যাব। সে গোদার বিল এলাকার মৃত রহমত হোছাইনের ছেলে।আটক ইয়াবার মুল্য চার কোটি ১৮ লাখ টাকা।
এদিকে দমদমিয়া বিজিবি সকাল সাড়ে ৯টার দিকে স্পেশাল বাস সার্ভিসে অভিযান চালিয়ে ১৯হাজার ৩৭৫ পিচইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে বলে জানা যায়। আনুমানিক মূল্য ৫৮ লক্ষ ১২ হাজার ৫শত টাকা।
টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রনজিত কুমার বড়ুয়া জানান, সাগরের নোয়াখালী পাড়া পয়েন্ট দিয়ে ফিশিং বোটে মিয়ানমার হতে ইয়াবার বিশাল চালান বাংলাদেশের অভ্যন্তরে প্রবেশের গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তিনি নিজে অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় সৈকতের হাঁটু পানিতে ভাসমান অবস্থায় ৩টি বস্তায় ভর্তি ৬ লাখ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এব্যাপারে পাচারের সাথে জড়িতদের শনাক্ত করে মামলা দায়ের করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।
এছাড়া টেকনাফস্থ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে. কর্ণেল আছাদুদ জামান চৌধুরী জানান, মিয়ানমার হতে ফিশিং বোটে ইয়াবার চালান খালাশের খবর পেয়ে শনিবার বিকালে নোয়াখালী পাড়া পয়েন্টে তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করেন জওয়ানরা। কিন্তু সেসময় কোন ইয়াবা উদ্ধার না হওয়ায় সারারাত টহল দেয় বিজিবি। পরে ভোরে সাগরে ভাসমান অবস্থায় বস্তাভর্তি ২ লাখ ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। ইয়াবাগুলো পরবর্তীতে ধ্বংস করা হবে বলেও জানান তিনি।
চলমান মাদক বিরোধী অভিযান সত্বে ও থেমে নেই পাচারকারীরা। এই মরণ নেশা ইয়াবার জোয়ারে ভাসছে সমগ্র টেকনাফ। সড়ক ও সাগরপথে মায়ানমার থেকে চিহ্নিত শীর্ষ ইয়াবা ব্যবসায়ীর মাধ্যমে সড়ক, নাফনদ ও সাগর পথ হয়ে হয়ে সারাদেশে পাচার হচ্ছে নিষিদ্ধ লাখ লাখ ইয়াবা ট্যাবলেট। এই ইয়াবা পাচার চিরতরে বন্ধ রাখতে প্রকৃত মাদককারবারীদের বাড়ী ঘর জব্দ ও তালিকাভূক্তদের শিগগিরই আইনের আওতায় আনার দাবী করেন টেকনাফের সচেতনমহল।

এই বিভাগের আরও খবর

  টেকনাফে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

  টেকনাফে অস্ত্রসহ ৬ মামলার পলাতক আসামি গ্রেফতার

  মাদক ও চোরাচালান রোধের অভিযানকে আরও কার্যক্ষম করার নির্দেশ দিলেন বিজিবি মহাপরিচালক

  ইয়াবা দমনে চার স্তরে ‘যুদ্ধ’ চালাবে বিজিবি

  টেকনাফে বিপুল পরিমাণ বিয়ারসহ আটক-১

  রোহিঙ্গাদের অধিকার ফিরিয়ে দিতে হবে মিয়ানমারকে-মার্কিন রাষ্ট্রদূত

  মিয়ানমারে পতাকা বৈঠক শেষে ১৭ বাংলাদেশি ফেরত

  কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শীর্ষ জলদস্যু নিহত

  রোহিঙ্গাদের দেখতে কক্সবাজারে নয়া মার্কিন রাষ্ট্রদূত

  টেকনাফে আড়াই লাখ ইয়াবা উদ্ধার, আটক-১১

  জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিশৃংখলা ঠেকাতে বিজিবি প্রস্তুত-কর্ণেল এস এম বায়েজীদ খান

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

সরকার ও নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে বিএনপির বিভিন্ন অভিযোগের প্রতিক্রিয়ায় ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নির্বাচন বানচালের জন্য তারা এসব অজুহাত তুলছে। আপনি কি তার সঙ্গে একমত?