রবিবার, ২১ অক্টোবর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ০৭:৪৭:০৮

কাপ্তাই এ শান্তি, সম্প্রীতি ও বৈচিত্র্যময় সংস্কৃতির মেল বন্ধনে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

কাপ্তাই এ শান্তি, সম্প্রীতি ও বৈচিত্র্যময় সংস্কৃতির মেল বন্ধনে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

কাপ্তাইঃ-বিভিন্ন সম্প্রদায় ও প্রতিষ্ঠান সমূহের ক্ষমতায়নের মাধ্যমে আস্থা অর্জন প্রকল্প এর আওতায় শান্তি, সম্প্রীতি ও বৈচিত্র্যময় সংস্কৃতির মেল বন্ধন এ মূল সুরকে উপজীব্য করে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা" আনন্দ" এর উদ্যোগে বৃহস্পতিবার কাপ্তাই উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হলো মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। কাপ্তাই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দিলদার হোসেন প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এই অনুষ্ঠানের উদ্বোধন  করেন। আনন্দ এর প্রজেক্ট ম্যানেজার রাখি ম্রং এর সভাপতিত্বে কাপ্তাই প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক, সাংস্কৃতিক সংগঠক ঝুলন দত্ত এর সঞ্চালনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সুব্রত বিকাশ তনচংগ্যা, কাপ্তাই উপজেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক ফনিন্দ্র লাল ত্রিপুরা, মারমা সাংস্কৃতিক সংস্থা (মাসস) এর সাংস্কৃতিক সম্পাদক মংসুইপ্রু মারমা, কাপ্তাই প্রেস ক্লাবের সভাপতি কবির হোসেন।অনুষ্ঠানে  উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান দিলদার হোসেন বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে বসবাসরত ক্ষুদ্র নৃ গোষ্ঠীর রয়েছে বৈচিত্র‍্যময় সংস্কৃতি। এই সংস্কৃতি লালন পালন করা আমাদের সকলের দায়িত্ব।
তিনি আরো বলেন, ক্ষুদ্র নৃ গোষ্ঠীর সংস্কৃতি ছাড়াও আমাদের লোকজ সংস্কৃতি, নৃত্য, গান বিশ্বদরবারে সমাদৃত। দ্বিতীয় পর্বে রওশন শরিফ তানির সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে চাকমা, তনচংগ্যা, মারমা, ত্রিপুরা সম্প্রদায়ের  ঐতিহ্যবাহী নাচ, গান ছাড়াও স্থানীয় শিল্পিদের পরিবেশনায় বাংলা নৃত্য, বাউল গান ও দেশের গান পরিবেশিত হয়। ফনিন্দ্র লাল ত্রিপুরা ও ঝুলন দত্তের পরিচালনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেন- রফিক আশেকী, তারাশংকর ত্রিপুরা জ্যাকলিন তনচংগ্যা, মাসাচিং মারমা, অনন্যা চাকমা, এনি তনচংগ্যা, এলিন চাকমা, রুনি তনচংগ্যা, শ্রাবণ তনচংগ্যা, রাহুল তনচংগ্যা, স্নেহা তনচংগ্যা, তুলি চৌধুরি, প্রিয়ন্তি দাশ, তাহিয়া এনাম, পুজা বৈদ্য সহ আরো অনেকে। অনুষ্ঠানে যন্ত্র সংগীতে সহযোগীতা করেন ফনিন্দ্র লাল ত্রিপুরা, ঝুলন দত্ত, অর্নব মল্লিক, অভিজিৎ দাশ কিষান, ইমরান হোসেন রোকন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, গুজব সনাক্তকরণে যে সেল করা হয়েছে, তা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মতপ্রকাশ নিয়ন্ত্রণ বা সোশ্যাল মিডিয়া পুলিশিং করবে না। আপনি কি এতে আশ্বস্ত?