সোমবার, ১৯ আগস্ট ,২০১৯

Bangla Version
  
SHARE

শনিবার, ২০ জুলাই, ২০১৯, ০৮:০৫:১৮

লামায় ফরমালিন বিরোধী অভিযানঃ ৩ শত কেজি ফরমালিন যুক্ত মাছ ধ্বংস

লামায় ফরমালিন বিরোধী অভিযানঃ ৩ শত কেজি ফরমালিন যুক্ত মাছ ধ্বংস

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, লামাঃ-জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ ২০১৯ পালন উপলক্ষে সপ্তাহব্যাপী কর্মসূচীর অংশ হিসেবে শনিবার (২০ জুলাই) বেলা ১১টায় লামা মাছ বাজারে উপজেলা মৎস্য অফিসের সহায়তায় ফরমালিন বিরোধী অভিযান ও মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে লামা উপজেলা প্রশাসন।
এসময় লামা মাছ বাজারের একটি আড়তের গোপন কক্ষে কয়েকটি ফ্রিজে সংরক্ষিত প্রায় ৩শত কেজির অধিক ফরমালিন ও গ্যাস যুক্ত মাছ জব্দ করে ধ্বংস করা হয়। মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন, লামা উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূর-এ জান্নাত রুমি। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, লামা পৌরসভার মেয়র মো. জহিরুল ইসলাম, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা জয় বণিক, থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক আব্দুল্লাহ বাকী, মো. জয়নাল আবেদীন, কাউন্সিলর মো. সাইফুদ্দিন, বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক জাপান বড়ুয়া সহ প্রমূখ।   
উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা জয় বণিক বলেন, শনিবার জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে লামা মাছ বাজারে উপজেলা প্রশাসনকে সাথে নিয়ে ফরমালিন বিরোধী মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। এসময় আমরা গোপন সংবাদ পেয়ে পাশের একটি গুদামে হানা দিই। সেখানে ৩টি ফ্রিজে ও কয়েকটি ককসিটের কার্টুনে ভর্তি প্রায় ৩ শতাধিক ফরমালিন যুক্ত গ্যাসের মাছ জব্দ করি। যার অধিকাংশ মাছ ১২ থেকে ১৫ মাসের অধিক পুরাতন। এইসব মাছ মানুষ খেলে মানবদেহে ক্যান্সার সহ জটিল অনেক রোগে আক্রান্ত হতে পারে। পরে থানা পুলিশ ও লামা পৌরসভার সহায়তায় মাছ গুলো একটি নির্দিষ্ট জায়গা গর্ত করে কেরোসিন ঢেলে আগুন জ্বালিয়ে ধ্বংস করা হয়। ফরমালিন বিরোধী এই অভিযান চলমান থাকবে।
লামা পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. সাইফুদ্দিন বলেন, সবসময় লামা বাজারে কিছু ব্যবসায়ী ফরমালিন যুক্ত মাছ বিক্রি করে আসছে। পৌরসভা থেকে তাদের অসংখ্যবার সতর্ক করলেও তারা সংশোধিত হয়নি।
নাম প্রকাশ না করা সত্ত্বে কিছু স্থানীয় লোকজন বলেন, লামা বাজারে নিয়মিতভাবে ফরমালিনও গ্যাসের মাছ বিক্রি হচ্ছে। অভিযান চালালে কয়েকদিন ঠিক থাকে, তারপর আবারো তারা ফরমালিন যুক্ত মাছ বিক্রি করে। অসাধু ব্যবসায়ীদের আইনের আওতায় না আনলে এই অভিযানের দীর্ঘমেয়াদী কোন ফল পাওয়া যাবেনা। আজকের এই বিশাল অভিযানে জব্দ ফরমালিন যুক্ত মাছের সাথে জড়িতদের আইনের আওতায় আনা প্রয়োজন ছিল। একজনকে আটক করে আবার ছেড়ে দেওয়ার বিষয়টি দুঃখজনক।
অভিযানের বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূর-এ জান্নাত রুমি বলেন, এখন থেকে নিয়মিত অভিযান চলবে। আজকে আমরা প্রায় লক্ষাধিক টাকা মাছ জব্দ করে ধ্বংস করা হয়েছে। আশা করি আজকের বিষয়টি মাথায় রেখে ব্যবসায়ীরা লামা বাজারে ভবিষতে কোন ফরমালিন যুক্ত বিক্রি করবেনা। অভিযানে সহায়তা করার জন্য তিনি লামা পৌরসভা, লামা থানা, উপজেলা মৎস্য অফিস ও স্থানীয়দের ধন্যবাদ দেন।

এই বিভাগের আরও খবর

  বান্দরবানে ডেঙ্গু প্রতিরোধে ঢাকা-চট্টগ্রাম যাত্রীবাহি যানবাহনে মশার ওষুধ স্প্রে ও পরিস্কার পরিচ্ছন্ন অভিযান

  টানা ছুটিতে আশানুরূপ পর্যটক নেইঃ অর্থনৈতিক ভাবে বিপর্যয়ে পড়বে পর্যটন শিল্পের সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা

  সোনালী লাইফ ইন্স্যুরেন্সের লামা শাখা অফিস উদ্বোধন

  বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুড়ি নয়-পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর

  বান্দরবানে ডেঙ্গু রোগ প্রতিরোধে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযানে পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি

  থানচিতে বন্যাদুর্গতদের মাঝে চাউল বিতরন

  প্রতারণা মামলায় আলীকদমে স্কুল শিক্ষক গ্রেফতার

  ১৫ আগষ্ট বাংলাদেশের ইতিহাসে সবচেয়ে অশ্রু ভেজা ও কলঙ্কময় অধ্যায়-পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর

  লামায় উপজেলা প্রশাসন ও আ’লীগের উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস পালিত

  থানচিতে জাতীয় শোক দিবস পালন

  আলীকদমে ভাব গাম্ভির্যের সাথে জাতীয় শোক দিবস পালিত

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডেঙ্গুতে মৃত্যুর সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তির প্রেক্ষাপটে আইইডিসিআরের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলছেন, মৃত্যুর ঘটনাগুলো ‘রিভিউ’ করার কোনো প্রয়োজন নেই, চিকিৎসকদের কথাই যথেষ্ট। আপনি কি তাকে সমর্থন করেন?