মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ,২০১৯

Bangla Version
SHARE

শুক্রবার, ১৫ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯, ০৯:০৯:৩১

এই সরকারের আমলেই প্রতিটি ধর্মের মানুষ তাদের ধর্মীয় উৎসব উদযাপন করতে পারছে-পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর

এই সরকারের আমলেই প্রতিটি ধর্মের মানুষ তাদের ধর্মীয় উৎসব উদযাপন করতে পারছে-পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর

বান্দরবানঃ-বান্দরবানের সদর উপজেলার কুহালং ইউনিয়নের কিবুক পাড়া বৌদ্ধ বিহারের বিহারাধ্যক্ষ প্রয়াত ভদন্ত কেসারা মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি বলেন, আওয়ামীলীগ সরকারের আমলে প্রতিটি ধর্মের মানুষ উৎসব মুখর ভাবে নিজ নিজ ধর্মীয় উৎসব উদযাপন করতে পারছে। আর বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা পার্বত্য এলাকার মানুষের প্রতি আন্তরিক বলেই আজ পাহাড়ের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রয়েছে।
এসময় পার্বত্য মন্ত্রী আরো বলেন, একমাত্র আওয়ামীলীগ সরকারের আমলে প্রত্যেক ধর্মের উৎসব উদযাপন করার জন্য সরকারি ভাবে বিভিন্ন সহায়তা পাচ্ছে।
শুক্রবার (১৫ ফেব্রুয়ারী) বান্দরবানের সদর উপজেলার কুহালং ইউনিয়নের কিবুক পাড়া বৌদ্ধ বিহারের বিহারাধ্যক্ষ প্রয়াত ভদন্ত কেসারা মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।
বিকালে অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ সর্বোচ্চ বৌদ্ধ ধর্মীয় গুরু ও মহা সংঘনায়ক ভদন্ত উইচারিন্দা মহাথেরোর সভাপতিত্বে এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আলী হোসেন, বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য ক্যসা প্রু, সদস্য তিং তিং ম্যা, সদস্য ম্রোসা খেয়াং, সদস্য ফিলিপ ত্রিপুরা, সিভিল সার্জন ডাঃ অংসুই প্রু মারমা, জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি একেএম জাহাঙ্গীর, কুহালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সানু প্রু মারমা, রাজবিলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য অং প্রু মারমা, ৬নং ওয়ার্ড মেম্বার মংয়ইনু মারমা, প্রয়াত ভদন্ত কেসারা মহাথের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উদ্যাপন কমিটির আহবায়ক থোয়াইনু মং মারমা, অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উদ্যাপন কমিটির সভাপতি ভদন্ত পাইন্দাওয়াসা মহাথের ও সাধারণ সম্পাদক ভদন্ত উত্তারা মহাথের সহ স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তা ও জন প্রতিনিধিবৃন্দরা।
অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠানের শুক্রবার (১৫ ফেব্রুয়ারী) সকালে বিভিন্ন ধর্মীয় মালা অনুষ্ঠিত হয় ও বিকাল ৩টাঃ ১মিনিটে সইং নৃত্য, ৫টায় ডুমা বাজি মধ্য দিয়ে সৎকার করা হয় ও সন্ধ্যায় প্রদীপ পূজার মধ্য দিয়ে এ দুইদিন ব্যাপী অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়।
প্রসঙ্গত, বান্দরবানের সদর উপজেলার কুহালং ইউনিয়নের কিবুক পাড়া বৌদ্ধ বিহারের বিহারাধ্যক্ষ, আজীবন ব্রহ্মাচারী, সুরেলা কন্ঠের ধর্মদেশক ও সর্বজন পূজ্য ভদন্ত কেসারা মহাথেরো গত ১৫ই এপ্রিল ২০১৮ খ্রিঃ রোজ শনিবার ভোর ৫টায় (ভিক্ষু ৪৫ বর্ষা) ৮১ বছর বয়সে পরলোক গমন করেন।

এই বিভাগের আরও খবর

  লামার নির্বাচনে গাড়ি দূর্ঘটনায় আহত ১৬, অপর ঘটনায় নিহত-১

  বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে আজ আমরা স্বাধীন দেশ পেতাম না-পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর

  উপজেলা নির্বাচন উপলক্ষে বান্দরবানের বিভিন্ন কেন্দ্রে কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে নির্বাচনী সরঞ্জাম

  নিউজিল্যান্ডের মসজিদে হামলার প্রতিবাদে লামায় মানববন্ধন

  উপজেলা নির্বাচন ঘিরে তেমন একটা আগ্রহ নেই বান্দরবানের ভোটারদের

  সৎভাবে আমাদের পণ্যগুলো যদি বাজারে বিক্রয় করি তাহলে আমরা সবাই সুস্থ থাকবো-মোহাম্মদ দাউদুল ইসলাম

  লামায় জীপের চাকায় পিষ্ট হয়ে রোহিঙ্গা শ্রমিক নিহত

  আলীকদমে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

  জাতীয় সংসদে বাসন্তী চাকমার রাষ্ট্রবিরোধী বক্তব্যের প্রতিবাদে বান্দরবানে প্রতিবাদ সমাবেশ

  লামায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ও আলীকদমে নির্বাচন অফিসারের বিরুদ্ধে অভিযোগ

  বান্দরবানের শান্তি-শৃংখলা ও সম্প্রীতির উন্নয়নে সবাইকে একসাথে কাজ করতে হবে-খন্দকার মো: শাহিদুল এমরান

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডাকসু নির্বাচনের সঙ্গে একাদশ সংসদ নির্বাচনের তুলনা করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, এতে ৩০ ডিসেম্বরের ‘ভোট ডাকাতি’র পুনরাবৃত্তি ঘটেছে। আপনি কি তা মনে করেন?