শনিবার, ২০ অক্টোবর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ০৮:৩৩:০০

নাইক্ষ্যংছড়ির বাইশারীতে পুলিশের গুলিতে ডাকাত নিহত, অস্ত্র উদ্ধার, ২ পুলিশ আহত

নাইক্ষ্যংছড়ির বাইশারীতে পুলিশের গুলিতে ডাকাত নিহত, অস্ত্র উদ্ধার, ২ পুলিশ আহত

নাইক্ষ্যংছড়িঃ-বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়িতে পুলিশের সাথে বন্দুক যুদ্ধে এক ডাকাত নিহত হয়েছে। এসময় তার কাছ থেকে ১টি এলজি, ১টি একনলা বন্দুক ও ৬টি গুলির খোসা উদ্ধার করা হয়েছে। এসময় সুলতান ও জ্যোতি চাকমা নামে দুইজন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে।
নিহত ডাকাতের নাম আনোয়ার হোসেন প্রকাশ বলি আনোয়ার (৪০) সে কক্সবাজারের রামু উপজেলার ঈদগড়ের কোনা পাড়ার আবু ছৈয়দের ছেলে। শনিবার (২২ সেপ্টেম্বর) ভোর রাতে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারীর ব্রিক ফিল্ড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
এদিকে পুলিশ জানায়, রাতে ব্রিক ফিল্ড এলাকায় কিছু ডাকাত ডাকাতির প্রস্ততি নেয়ার সময় গোপনে খবর পেয়ে বাইশারী তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ একেএম হাবিবুল ইসলাম এর নের্তৃত্বে একদল পুলিশ সেখানে গেলে ডাকাতরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। এসময় পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়।
পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাকির হোসেন মজুমদার জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযানে গেলে বাইশারীর ব্রিকফিল্ড এলাকায় ডাকাতরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। পরে পুলিশও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে আনোয়ার ডাকাত নিহত হয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্রসহ আনোয়ার ডাকাতের লাশ উদ্ধার করে।

এই বিভাগের আরও খবর

  বর্তমান সরকারের আমলে পার্বত্যাঞ্চলে ব্যাপক উন্নয়ন সম্পাদন করছে-বীর বাহাদুর এমপি

  বান্দরবানে শারদীয় দুর্গোৎসবের সমাপ্ত

  থানচি'র পর্যটন কেন্দ্র ঙাফাঁখুম ভ্রমনে এসে লাশ হয়ে ফিরল আরিফুল হাসান

  দেশের সামগ্রিক উন্নয়নে শেখ হাসিনা সরকারের কোন বিকল্প নেই-বীর বাহাদুর এমপি

  বান্দরবানে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের মানববন্ধন

  রাতে স্বামীর সাথে ঝগড়া, সকালে ঘরে গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ

  থানচি সড়কে হিউম্যানটোরিয়ান ফাউন্ডেশনের পরিস্কার পরিচ্ছন্ন অভিযান

  শৈল জ্যোতি উপাধীতে ভুষিত হলেন পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপি

  থানচিতে নদীতে ডুবে এক পর্যটক নিখোঁজ

  শান্তিচুক্তির সুফল: পার্বত্য অঞ্চল আজ উন্নয়নের জোয়ারে ভাসছে-বীর বাহাদুর এমপি

  পুষ্টি নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আমাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখতে হবে

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, গুজব সনাক্তকরণে যে সেল করা হয়েছে, তা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মতপ্রকাশ নিয়ন্ত্রণ বা সোশ্যাল মিডিয়া পুলিশিং করবে না। আপনি কি এতে আশ্বস্ত?