সোমবার, ২৩ এপ্রিল ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

বৃহস্পতিবার, ০৯ নভেম্বর, ২০১৭, ০৭:১২:৩১

লামায় এসএসসি ও দাখিল ফরম পূরণে অতিরিক্ত টাকা নেওয়ার অভিযোগ

লামায় এসএসসি ও দাখিল ফরম পূরণে অতিরিক্ত টাকা নেওয়ার অভিযোগ

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, লামাঃ-লামায় উপজেলায় এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষা ২০১৮ এর ফরম পূরণে অতিরিক্ত টাকা নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে। এবিষয়ে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড চট্টগ্রামের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মোহাম্মদ মাহাবুব হাসান জানিয়েছেন, বোর্ডের নিদির্ষ্ট ফি ছাড়া অন্য কোন ফি আদায়ের সুযোগ নেই। এব্যাপারে লিখিত অভিযোগ পেলে সংশ্লিষ্ট বিদ্যালয় ও শিক্ষকের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
লামা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা গেছে, উপজেলায় ৯টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও ৪টি মাদ্রাসায় ২০১৮ সালের এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষার ফরম পূরণ চলছে। বোর্ডের নির্দেশনা মতে ১৩ নভেম্বর পর্যন্ত ফরম পূরণ চলবে। তবে বিলম্ব ফি ১শত টাকা দিয়ে ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত ফরম পূরণের সুযোগ রয়েছে।
এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষার বোর্ড নির্দেশনা মতে একজন পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষার ফি, একাডেমিক ট্রান্সক্রীপ্ট ফি, মূল সনদ ফি, বয় স্কাউট/ গার্লস গাইড ফি, শিক্ষা সপ্তাহ ফি সহ অন্যান্য ফি মিলে ফরম পূরণের জন্য ১ হাজার ৪৫ টাকা হতে সর্বোচ্চ ১হাজার ৩৫০ টাকা প্রদান করার কথা রয়েছে। অথচ উপজেলার বেশ কয়েকটি বিদ্যালয়ে দিগুণ ও তিনগুণ পর্যন্ত ফরম পূরণের ফি আদায়ের অভিযোগ উঠেছে।
শিক্ষার্থীদের সাথে আলাপকালে জানা গেছে, লামা আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৩ হাজার ৩শত টাকা, লামা সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ে ২ হাজার ১শত টাকা, লামা ইসলামিয়া ফাজির মাদ্রাসায় ৩ হাজার টাকা এবং কোন স্কুলে আরো বেশী নেয়া হচ্ছে। পাহাড়ি পশ্চাৎপদ দরিদ্র এলাকায় অতিরিক্ত ফি আদায় করার কারণে অনেক শিক্ষার্থী পরীক্ষা থেকে ঝড়ে পড়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। বোর্ড ফি ছাড়া অন্য কোন ফি না নেয়ার কথা থাকলে বিদ্যালয় গুলো বাধ্যতামূলকভাবে কোচিং ফি, মডেল টেষ্ট ও সেশন ফি আদায় করছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নাম প্রকাশ না করা সত্ত্বে এক পরীক্ষার্থী বলেন আমি ২ হাজার ৫শত টাকা নিয়ে গেলেও আমার ফরম পূরণ করা হয়নি।  
এবিষয়ে লামা আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ.এম. ইমতিয়াজ জানান, আমরা বোর্ড ফি ১৪৫০ টাকা, কোচিং ফি ১হাজার ও সেশন ফি ৫০০ টাকা নিচ্ছি। লামা সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বিথি তংচংগ্যা বলেন, বোর্ড ফি ১হাজার ৪৫০ টাকা ও মডেল টেষ্ট ৫শত টাকা নেয়া হচ্ছে। লামা ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা আবু তৈয়ব বলেন, বোর্ড ফি ১হাজার ৭শত ও কোচিং ফি ১হাজার ৩শত টাকা নেয়া হচ্ছে।
অতিরিক্ত ফি আদায়ের বিষয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, বোর্ডের নির্দেশনা মতে ফরম পূরণের ফি নিতে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকদের বলা হয়েছে। কেউ অতিরিক্ত ফি আদায় করলে তার জবাবদিহিতা তাকে করতে হবে।

এই বিভাগের আরও খবর

  লামায় ১২টি ম্রো পরিবারের ঘর আগুনে পুড়ে ছাই

  ঝিরির পানিতে ভেসে আসা কঙ্কালটির পরিচয় মিলেনি

  বান্দরবানে রাজপরিবারের উদ্যোগে নদী পূজা উদযাপন

  আওয়ামীলীগ সরকার পাহাড়ের মানুষকে কখনো ভুল স্বপ্ন দেখাইনি-বীর বাহাদুর এমপি

  বর্তমান সরকার ম্যালেরিয়া রোগ নিমূলে কাজ করে যাচ্ছে-অধ্যাপক ডা: সানিয়া তাহমিনা

  শান্তিচুক্তির কারণে আজ পার্বত্য অঞ্চলের মানুষ শান্তিতে নিজ ধর্মীয় উৎসব পালন করতে পারছে-বীর বাহাদুর এমপি

  নাইক্ষ্যংছড়িতে তামাক চাষী অপহরণ

  শান্তিচুক্তির সুফল স্বরূপ পাহাড়ে একের পর এক উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়িত হচ্ছে-বীর বাহাদুর এমপি

  বান্দরবান জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানকে গণমাধ্যম কর্মীদের সংবর্ধনা

  বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে ১৭ এপ্রিল অত্যন্ত গুরুত্ব ও তাৎপর্যপূর্ণ দিন

  লামায় জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলীর ওয়াস ব্লক নির্মাণ কাজে চরম অনিয়ম

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

সাবেক সিইসি কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ বলেছেন, নির্বাচনে ‘লেভেল প্লেইং ফিল্ড’ প্লেটে তুলে দেওয়া যায় না; রাজনৈতিক দলগুলো মাঠে নামলে খেলতে খেলতেই সবার জন্য সমান সুযোগ তৈরি হয়। আপনি কি তা মনে করেন?