বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

বৃহস্পতিবার, ০১ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮, ০৯:২০:০৫

সফটওয়ার দেবে মৃত্যুর আগাম খবর!

সফটওয়ার দেবে মৃত্যুর আগাম খবর!

ডেস্ক রিপোর্টঃ-যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রশাসন দফতর মঙ্গলবার একটি সফটওয়ারের অনুমোদন দিয়েছেন যা হৃদপিণ্ড বা ফুসফুসের হঠাৎ বন্ধ হয়ে যাওয়া সম্পর্কে আগাম সতর্ক বার্তা দিতে পারবে। যুক্তরাষ্ট্রের বেশ কয়েকটি হাসপাতাল এই ব্যবস্থা চালু করেছে। ওয়েভ ক্লিনিক্যাল প্লাটফর্ম নামের এ সফটওয়্যার হার্ট অ্যাটাকের শিকার হওয়ার অন্তত ছয় ঘণ্টা আগে সংকেত দিতে পারে।
সফটওয়ারটির প্রস্তুতকারক কোম্পানি এক্সেল মেডিকেল সার্ভিসের মহাব্যবস্থাপক ল্যান্স বার্টন বলেন, রোগীদের নজরদারিতে রাখা হলেও চিকিৎসক বা সেবিকারা তখন সেবা দিতে পারেন, যখন কেউ ভয়াবহ কোন ঘটনার শিকার হন। আগে তাদের সেটি বুঝতে পারা সম্ভব নয়। সফটওয়ারটি সেসব ক্ষেত্রে কাজে দেবে।
সফটওয়ারটি ব্যবহারের জন্য আলাদা বিশেষ কোন যন্ত্রপাতির দরকার হবে না। হাসপাতালে এখন যে নজরদারি ব্যবস্থাগুলো চালু রয়েছে, সেগুলো ব্যবহার করেই নতুন এই প্রযুক্তি কাজ করবে। সফটওয়ার নির্মাতারা আশা করছেন, এর মাধ্যমে বছরে এ ধরনের অন্তত আড়াই লাখ মানুষের মৃত্যু ঠেকানো যাবে।
অনেক হাসপাতালেই রোগীদের জন্য পর্যাপ্ত চিকিৎসক বা কর্মী থাকে না। ওয়েভ ক্লিনিক্যাল প্লাটফর্ম সফটওয়ার রোগীর বিভিন্ন তথ্য যাচাই বাছাই এবং শারীরিক অবস্থা, ধরণ পর্যালোচনা করবে, যা হয়তো মানুষের সাধারণ চোখে ধরা পড়ে না।
সফটওয়ারটি হার্ট বিট, ফুসফুসের শ্বাস নেয়ার ধরণ, রক্তের চাপ, শরীরের তাপমাত্রা আর অক্সিজেনের মাত্রা যাচাই করবে। এসব তথ্য স্বাস্থ্য কর্মীরা তাদের ফোন, ট্যাবলেট বা কম্পিউটারেও দেখতে পারবেন। ফলে বিছানার পাশে না এসেও, তারা যেকোনো স্থানে বসে রোগীর উপর নজরদারি করতে পারবেন। রোগীদের ০-৫ মাত্রায় নজরদারি করা হবে। কোন রোগীর অবস্থা যদি ৩ এর বেশি হয়ে যায়, তখনি সফটওয়ারটি সতর্ক বার্তা পাঠাতে শুরু করবে।
ওয়েভ ক্লিনিক্যাল প্লাটফর্ম সফটওয়ারে অ্যালগোরিদম ব্যবস্থা আছে যার নামকরণ করা হয়েছে ভিসেনশিয়া সেফটি ইনডেক্স। প্রথমবারের মতো মার্কিন স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ এ ধরণের কোন স্বাস্থ্য সফটওয়ারের অনুমোদন দিয়েছে। তবে এর মাধ্যমে সব রোগীকেই যে বাঁচানো যাবে, সেই আশা করছেন না বিজ্ঞানীরা। তারা এখন শুধু সঠিক সময়ে সঠিক চিকিৎসা নিশ্চিত করে মৃত্যুর হার কমিয়ে আনতে চাইছেন।

এই সফটওয়ারটি শুধু নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রগুলোয় ব্যবহার করা সম্ভব। নির্মাতার চেষ্টা করছেন এটির আরো উন্নতি করার, যাতে সাধারণ মানুষজনের হাতেও পৌঁছে দেয়া যায়। হৃদপিণ্ড বা ফুসফুসের বাইরে অন্যান্য রোগও যাতে এটির মাধ্যমে সনাক্ত করা যায়, সেই চেষ্টাও করছেন নির্মাতারা। সূত্র: বিবিসি বাংলা

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘খালেদা জিয়ার রায়ের মাধ্যমে রাজনৈতিক সংকট ঘনীভূত হবে না বরং বিএনপির অভ্যন্তরীণ সংকট ঘনীভূত হবে।’ আপনি কি তাই মনে করেন?