রবিবার, ২৪ জুন ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ১৪ জুন, ২০১৮, ০৮:৪৫:১৫

বাঘাইছড়িতে বন্যা পরিস্থিতি স্থিতিশীল, ১জনের মৃত্যু, ১৯ আশ্রয় কেন্দ্রে ৭৬৬টি পরিবার

বাঘাইছড়িতে বন্যা পরিস্থিতি স্থিতিশীল, ১জনের মৃত্যু, ১৯ আশ্রয় কেন্দ্রে ৭৬৬টি পরিবার

বাঘাইছড়িঃ-রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়ির উপজেলার বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত রয়েছে। বাঘাইছড়ির ১৬টি গ্রাম সম্পূর্ণ পানিতে তলিয়ে আছে। বাঘাইছড়ির হাজি পাড়ায় বুধবার রাতে বন্যার পানিতে ডুবে উত্তম ত্রিপুরা নামে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে।
পাহাড়ী ঢল নেমে আসায় বাঘাইছড়ির বিস্তৃণ এলাকার কৃষি জমি ও রাস্তাঘাট পানিতে তলিয়ে গেছে। পানিবন্দি মানুষ নিরাপদ আশ্রয়ের খোঁজে বিভিন্ন স্কুল, কলেজ ও মার্কেটসহ বিভিন্ন পাকা ভবনে অবস্থান নিয়েছে।
বাঘাইছড়ির ১৯ টি আশ্রয় কেন্দ্রে ইতো মধ্যে ৭শ৬৬টি পরিবার আশ্রয় নিয়েছে। এর মধ্যে বায়তুশ শরফ কেন্দ্রে ৭৫ পরিবার,ইউএনও অফিস ভবনে ৩৩ পরিবার, কাচালং সরকারী কলেজে ২৩ পরিবার, মাষ্টারপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয কেন্দ্রে ১৬ পরিবার, রূপকারী ইউনিয়ন পরিষদ ও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ১২০ পরিবার, কাচালং মডেল উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে ১০ পরিবার, শীল মাষ্টার পাড়া কেন্দ্রে ২৫ পরিবার, বাঘাইছড়ি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে ২২ পরিবার, বাঘাইছড়ি আবাসিক সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৩০ পরিবার, বাঘাইছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ২০ পরিবার, উগলছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ৮০ পরিবার, কাচালং দাখিল মাদ্রাসায় ৩৫ পরিবার, কিশলয় সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ১০ পরিবার, আওয়ামী লীগ অফিস ভবনে ৩৩ পরিবার, বাবুপাড়া কমিউনিটি সেন্টারে ৪০ পরিবার, চৌমুহনী সদরে ৪০ পরিবার, পুরাতন কোর্ট অফিসে ৪০ পরিবার, পশ্চিম লাইল্যা ঘোনায় ৮০ পরিবার, ও কবরস্থান মার্কেট ভবনে ৩৫ পরিবার আশ্রয় নিয়েছে।
আশ্রয় কেন্দ্র ছাড়াও আরো অসং পরিবার স্বজনদের বাড়িঘরে আশ্রয় নিয়েছে।
স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন থেকে দূর্গতদের জন্য বৃহস্পতিবার তেকে ত্রাণ তৎপরতা শুরু করছে। স্থানীয় আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকেও দূর্গতদের মাঝে শুকনা খাবার, বিশুদ্ধ খাবার পানি, পানি বিশুদ্ধ করন টেবলেট বিতরণ করা হচ্ছে। আগামী তিনদিন আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে দূর্গতদের ত্রান ও খাবার বিতরণ করা হবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা আওয়ামী রীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ আলী হোসেন ও সহ সভাপতি আব্দুর শুকুর মিঞা।
অবিরাম বৃষ্টি ও সীমান্ত থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলে কাচালং নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়ির উপজেলার ১৬টি গ্রাম সম্পূর্ণ প্লাবিত হয়েছে। যাতায়াতের রাস্তা পানিতে ডুবে থাকায় বন্ধ হয়ে গেছে বাঘাইছড়ির অভ্যন্তরীন যোগাযোগ ব্যবস্থা। এখনো পানিবন্দি হয়ে পড়েছে প্রায় ৬০ হাজার মানুষ। এর মধ্যে ২০ ভাগ মানুষ আশ্রয় কেন্দ্রে গেলেও ৮০ ভাগ মানুষ অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছে। দেখা দিয়েছে বিশুদ্ধ খাবার পানির সংকট। বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ।
রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসন বাঘাইছড়ি দূর্গত এলাকার জন্য ২০ মেট্রিক টন খাদ্য শষ্য বরাদ্দ দিয়েছে। অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক এস এম শফি কামাল জানান, বাঘাইছড়ির উপজেলা প্রশাসন বন্যাকবলিত এলাকায় দুর্গতদের লোকজনের জন্য কাজ করছে। এছাড়া কাপ্তাই হ্রদের পানি প্রবাহ স্বাভাবিক উচ্ছতায় রাখতে জেলা প্রশাসন কাপ্তাই জল বিদ্যুৎ প্রকল্পের ব্যবস্থাকের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে বলে তিনি জানান।
এদিকে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলাপরিসদের পক্ষ থেকে প্রত্যেক আশ্রয় কেন্দ্রে দেড় হাজার প্যাকেট করে শুকনো খাবার প্যাকেট বিতরণ করা হযেছে। আগামী দু এক দিনের মধ্যে পানি কমে গেলে দুগর্ত এলাকায় জেলা পরিসদের ত্রান বিতরণ কার্যক্রম শুরু করা হবে।
এদিকে পাহাড়ী ঢল ও অতি বর্ষনের কারণে কাপ্তাই হ্রদের পানি উচ্চতা বাড়তে থাকায় লংগদু, জুরাছড়ি, বরকল, বিলাইছড়ি, নানিয়ারচরের নিম্নাঞ্চলের বসতবাড়ি ও কৃষি জমি পানিতে ডুবে গেছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  নির্বাচনকে সামনে রেখে পাহাড়ের অবৈধ অস্ত্রধারীরা ত্রাসের সৃষ্টি করছে

  লংগদুতে আওয়ামীলীগের ৬৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন

  জনসেবায় নিযুক্ত হলে অঙ্গীকারবদ্ধতা ও দায়বদ্ধতা থাকতে হবে-ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা

  সম্প্রতি প্রবল বর্ষনে শাহ হাই স্কুল ভবন ও অডিটরিয়ামের পিছনে ভাঙ্গন, প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নেয়া জরুরী

  বলাকা ক্লাবের উদ্যোগে সৌখিন ফুটবল টুর্ণামেন্টঃ মংলা স্মৃতি চ্যাম্পিয়ন, পান্ডিয়া দল রানার্স আপ

  হাজারো মানুষের ভালোবাসা আর ফুলেল শ্রদ্ধায় ডাঃ নিহারেন্দু তালুকদারের দাহক্রিয়া সম্পন্ন

  পাহাড় ধ্বসের ঘটনায় মগবান, বালুখালী ও জীপতলীর ক্ষতিগ্রস্থ ঢেউটিন নগদ অর্থ বিতরণ

  খালেদা জিয়ার নিঃশ্বর্ত মুক্তির না দিলে পার্বত্য রাঙ্গামাটি থেকে বৃহত্তর আন্দোলন

  না ফেরার দেশে চলে গেলেন ডাঃ নিহারেন্দু তালুকদার

  যোগ ব্যায়ামের প্রসারের ফলে শারীরিক ও আত্মিক উন্নয়ন সম্ভব

  মাছ ধরা বন্ধকালীন সময়ে ৪০ কেজি করে চাল দেয়া না হলে হরতালসহ বৃহত্তর কর্মসূচী দেয়ার ঘোষণা

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, চলমান মাদকবিরোধী অভিযানে তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে কাজ হচ্ছে, এখানে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। বাস্তবে তা ঘটবে বলে মনে করেন?