বৃহস্পতিবার, ২৪ জানুয়ারী ,২০১৯

Bangla Version
SHARE

মঙ্গলবার, ০৬ নভেম্বর, ২০১৮, ০৮:০১:৫৫

রাঙ্গামাটিতে গুর্খা সম্প্রদায়ের দুইদিন ব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” শুরু

রাঙ্গামাটিতে গুর্খা সম্প্রদায়ের দুইদিন ব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” শুরু

রাঙ্গামাটিঃ-রাঙ্গামাটি পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত নেপালের বংশদ্ভুত গুর্খা সম্প্রদায়ের দেওয়ালী পূজা (কালিপূজা) উপলক্ষ্যে ২ দিনব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” মঙ্গলবার (৬ নভেম্বর) থেকে শুরু হয়েছে। বুধবার (৭ নভেম্বর) দেওসী ও ভাইটিকা দেয়ার মাধ্যমে গুর্খা সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী উৎসব শেষ হবে।
নেপালের বংশদ্ভুত আদিবাসী গুর্খা সম্প্রদায়ের আবাল, বৃদ্ধ, বনিতারা সবাই এই উৎসবে মেতে উঠে আনন্দে উদ্বেল হয়ে পড়ে। দেওয়ালী পূজাকে সামনে রেখে নেপালের বংশদ্ভুত এই গুর্খা সম্প্রদায় সুদীর্ঘকাল থেকে উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে এই উৎসব পালন করে আসছে।
গুর্খা সম্প্রদায়ের দু’দিন ব্যাপী এই উৎসব উৎসাহ ও উদ্দিপনার মধ্যে দিয়ে চলে। উৎসবের প্রথম দিনকে “ভৈল” ও দ্বিতীয় দিনকে বলা হয় “ধংসি/ঢেউসি”। গুর্খা সম্প্রদায়ের আবাল বৃদ্ধ বণিতা সবাই পাড়ায় পাড়ায় এই উৎসবে মেতে উঠে আনন্দে উদ্বেল হয়ে পড়ে। উৎসবে পাড়ায় পাড়ায় নাচ গানসহ ঘরে ঘরে মোমবাতির আলো জ্বালিয়ে দিন ও রাতভর আনন্দে মেতে থাকে।
আর এই উৎসবের দিনে কয়েকটি দলে বিভক্ত হয়ে এলাকার বিভিন্ন পাড়ায় পাড়ায় গিয়ে নাচ, গানসহ ঘরে ঘরে মোমবাতির আলো জ্বালিয়ে দিনে ও রাতে আনন্দে মেতে থাকে।
উৎসবের প্রথম ও দ্বিতীয় দিনে দলগুলি বিভিন্ন পাহাড়ী পল্লীগুলোতে গিয়ে চাউল, টাকা, তরিতরকারী, রক্সী (পাহাড়ী মদ) সংগ্রহ করে থাকে। এই সমস্ত জিনিস সংগ্রহ করে পরবর্তীতে সবাই মিলে বনভোজনের আয়োজন করা হয়। দ্বিতীয় দিন ভাইটিকা দেয়া হয়। দধিতে চাউল মিশিয়ে ভাই বোন একে অপরকে তাজ পড়িয়ে দেয়।
রাঙ্গামাটি শহরের জেল রোড, মাঝেরবস্তি, আসামবস্তি ও গর্জনতলীতে গুর্খা সম্প্রদায় “ভৈল-ধেওসী” উৎসবে মেতে উঠতে দেখা যায়।
উল্লেখ্য, রাঙ্গামাটি জেলায় গুর্খা সম্প্রদায়ের অধিবাসীরা দেওয়ালী পূজা (কালীপুজা) কে সামনে রেখে নেপাল বংশোদ্ভুত এই সম্প্রদায় সুদীর্ঘকাল থেকে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে এই উৎসব পালন করে আসছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  আগামী প্রজন্মকে ডিজিটাল অগ্রযাত্রায় নিয়ে যেতে প্রতিটি স্কুলে কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন জরুরী-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা

  পার্বত্য অঞ্চলের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করতে সকলকে আরো আন্তরিক হতে হবে-সচিব নূরুল আমিন

  ফিরোজা বেগম চিনুকে আবারো সংসদ সদস্য হিসাবে দেখতে চায় পাহাড়ের নারীরা

  পরিষদ চেয়ারম্যানের সঙ্গে বাংলাদেশে নিযুক্ত অস্ট্রেলিয়ান হাই কমিশনারের সৌজন্য সাক্ষাৎ

  সমাজ ও দেশের উন্নয়ন করতে হলে আদর্শিক ও নৈতিক শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে-এ কে এম মামুনুর রশিদ

  কাপ্তাইয়ের কেপিএমে ৩ মাসের বকেয়া বেতনের দাবিতে এমডির অফিস ঘেরাও

  রাঙ্গামাটির আসামবস্তি থেকে জেএসএসের চাঁদা কালেক্টর অস্ত্রসহ আটক

  শেখ হাসিনা সুস্থতা কামনায় রাঙ্গামাটি রাজবন বিহারে ধর্মানুষ্ঠান করলেন এক বৃদ্ধা ও তার পরিবার

  কে হচ্ছেন এবার পাহাড়ের সংরক্ষিত নারী নেত্রী! চিনু-শান্তনা নাকি অন্য কেউ ?

  জীবনের ফ্রি ব্লাড গ্রুপিং কর্মসূচি খুবই মহতী উদ্যোগ ও সত্যি প্রশংসনীয়-এ কে এম মামুনুর রশিদ

  বরকলের দূর্গম গ্রামের মানুষের স্বেচ্ছাশ্রমে ১০ কিলোমিটার রাস্তা নির্মাণ

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

বৈষম্য কমাতে নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য পেনশন ব্যবস্থা চালুর পরামর্শ দিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান। এটা করা হলে বৈষম্য কমবে বলে মনে করেন?