শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

মঙ্গলবার, ০৬ নভেম্বর, ২০১৮, ০৮:০১:৫৫

রাঙ্গামাটিতে গুর্খা সম্প্রদায়ের দুইদিন ব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” শুরু

রাঙ্গামাটিতে গুর্খা সম্প্রদায়ের দুইদিন ব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” শুরু

রাঙ্গামাটিঃ-রাঙ্গামাটি পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত নেপালের বংশদ্ভুত গুর্খা সম্প্রদায়ের দেওয়ালী পূজা (কালিপূজা) উপলক্ষ্যে ২ দিনব্যাপী ঐতিহ্যবাহী উৎসব “ভৈল-ধেওসী” মঙ্গলবার (৬ নভেম্বর) থেকে শুরু হয়েছে। বুধবার (৭ নভেম্বর) দেওসী ও ভাইটিকা দেয়ার মাধ্যমে গুর্খা সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী উৎসব শেষ হবে।
নেপালের বংশদ্ভুত আদিবাসী গুর্খা সম্প্রদায়ের আবাল, বৃদ্ধ, বনিতারা সবাই এই উৎসবে মেতে উঠে আনন্দে উদ্বেল হয়ে পড়ে। দেওয়ালী পূজাকে সামনে রেখে নেপালের বংশদ্ভুত এই গুর্খা সম্প্রদায় সুদীর্ঘকাল থেকে উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে এই উৎসব পালন করে আসছে।
গুর্খা সম্প্রদায়ের দু’দিন ব্যাপী এই উৎসব উৎসাহ ও উদ্দিপনার মধ্যে দিয়ে চলে। উৎসবের প্রথম দিনকে “ভৈল” ও দ্বিতীয় দিনকে বলা হয় “ধংসি/ঢেউসি”। গুর্খা সম্প্রদায়ের আবাল বৃদ্ধ বণিতা সবাই পাড়ায় পাড়ায় এই উৎসবে মেতে উঠে আনন্দে উদ্বেল হয়ে পড়ে। উৎসবে পাড়ায় পাড়ায় নাচ গানসহ ঘরে ঘরে মোমবাতির আলো জ্বালিয়ে দিন ও রাতভর আনন্দে মেতে থাকে।
আর এই উৎসবের দিনে কয়েকটি দলে বিভক্ত হয়ে এলাকার বিভিন্ন পাড়ায় পাড়ায় গিয়ে নাচ, গানসহ ঘরে ঘরে মোমবাতির আলো জ্বালিয়ে দিনে ও রাতে আনন্দে মেতে থাকে।
উৎসবের প্রথম ও দ্বিতীয় দিনে দলগুলি বিভিন্ন পাহাড়ী পল্লীগুলোতে গিয়ে চাউল, টাকা, তরিতরকারী, রক্সী (পাহাড়ী মদ) সংগ্রহ করে থাকে। এই সমস্ত জিনিস সংগ্রহ করে পরবর্তীতে সবাই মিলে বনভোজনের আয়োজন করা হয়। দ্বিতীয় দিন ভাইটিকা দেয়া হয়। দধিতে চাউল মিশিয়ে ভাই বোন একে অপরকে তাজ পড়িয়ে দেয়।
রাঙ্গামাটি শহরের জেল রোড, মাঝেরবস্তি, আসামবস্তি ও গর্জনতলীতে গুর্খা সম্প্রদায় “ভৈল-ধেওসী” উৎসবে মেতে উঠতে দেখা যায়।
উল্লেখ্য, রাঙ্গামাটি জেলায় গুর্খা সম্প্রদায়ের অধিবাসীরা দেওয়ালী পূজা (কালীপুজা) কে সামনে রেখে নেপাল বংশোদ্ভুত এই সম্প্রদায় সুদীর্ঘকাল থেকে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে এই উৎসব পালন করে আসছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  প্রত্যন্ত এলাকার মানুষদের পরিবার পরিকল্পনা পদ্ধতি সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে হবে-বৃষ কেতু চাকমা

  রাঙ্গামাটিতে টেকসই সামাজিক সেবা প্রদান প্রকল্পের জেলা সমন্বয় কমিটির সভা

  বেইন ঘর আর চরকায় সুতা কাটার মাধ্যমে রাঙ্গামাটি রাজবন বিহারে দুইদিনের কঠিন চীবর দান উৎসব শুরু

  জুরাছড়িতে প্রাথমিক শিক্ষা উপবৃত্তির টাকা বিতরণ

  জুরাছড়ি শুকনাছড়ি বেনুবন বৌদ্ধ বিহারে কঠিন চীবর দান

  নিজেকে সচেতন করা গেলে ডায়াবেটিস রোগ নিয়ন্ত্রণ করা যায়-নিখিল কুমার চাকমা

  শুক্রবার রাঙ্গামাটিতে তিন পার্বত্য জেলার সর্ববৃহৎ জশনে জুলুছ

  একাদশ সংসদ নির্বাচনঃ রাঙ্গামাটিতে ইউপিডিএফ ২টি, ইসলামিক আন্দোলন বাংলাদেশ ১টি ও ওয়াকর্স পার্টি ১টি

  রাঙ্গামাটিতে বিএনপি থেকে দীপেন, মণীষ, শাহ আলম, মামুন ও পনির মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ

  চলমান উন্নয়ন ধারা অব্যাহত রাখতে দীপংকর তালুকদারকে নৌকা প্রতিকে জয় যুক্ত করতে হবে

  সমাজে শান্তি প্রতিষ্ঠায় যার যার ধর্ম পালন করার প্রয়োজন রয়েছে-বৃষ কেতু চাকমা

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নির্বাচন না পেছালেও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ভোটে আসত। আপনি কি তা মনে করেন?