শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

বৃহস্পতিবার, ১২ এপ্রিল, ২০১৮, ০৮:১৪:৩০

সরকার সকল সম্প্রদায়ের মানুষের উৎসব উদযাপনের সুযোগ নিশ্চিত করেছে-ড. গওহর রিজভী

সরকার সকল সম্প্রদায়ের মানুষের উৎসব উদযাপনের সুযোগ নিশ্চিত করেছে-ড. গওহর রিজভী

রাঙ্গামাটিঃ-ধর্ম যার যার উৎসব সবার। এই নীতিতে বর্তমান সরকার দেশের সকল সম্প্রদায়ের মানুষের উৎসব উদযাপনে সুযোগ নিশ্চিত করেছে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিক বিষয়ক উপদেষ্টা ড. গওহর রিজভী।
বৃহস্পতিবার (১২ এপ্রিল) দুপুরে রাঙ্গামাটিতে পাহাড়ীদের বৈসাবি উৎসবের র‌্যালী ও কাপ্তাই হ্রদে ফুল ভাসানোর অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।
ড. গওহর রিজভী বলেন, বাংলাদেশ একটি অসাম্প্রদায়িক ও ধর্ম নিরপেক্ষ দেশ। এদেশে অনেক ক্ষুদ্র জাতিগোষ্ঠির বসবাস। তারা তাদের নিজস্ব বৈশিষ্ট নিয়ে সকলেই স্বাধীন ভাবে যার যার ধর্ম ও উৎসব পালন করছে। এটা আমাদের দেশের জন্য গৌরবের এবং আনন্দের।
এসময় পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা, ভাইস চেয়ারম্যান তরুন কান্তি ঘোষ, রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা, রাঙ্গামাটি রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল গোলাম ফারুক, জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদ, পুলিশ সুপার মোঃ আলমগীর কবির উপস্থিত ছিলেন।
পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা বলেন, আমাদের পাহাড়ের পার্বত্য চট্টগ্রামের সব চেয়ে বড়  একটা উৎসব। যেখানে জাতি ধর্ম বর্ণ সম্প্রদায় নির্বিশেষে আমরা সবই এই উৎসব পালন করে থাকি। আমরা অত্যন্ত আনন্দিত যে ফুল বিজুর ফুল ভাসানোর দিনে আমরা আমাদের প্রধান অতিথি হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিক বিষয়ক উপদেষ্টা প্রফেসর ড. গওহর রিজভী মহোদয়কে আমরা পেয়েছি। আমরা মনে করি যে এবার আমাদের উৎসবে আমাদের সাথে মিলিত হয়েছেন এটা আমাদের সৌভাগ্যের বিষয়।
তিনি বলেন, পাহাড়ের প্রতিটি গ্রামে প্রতিটি মৌজায় খুব জাগজমকপূর্ণ ভাবে উদযাপিত হচ্ছে এবং এই জন্য সরকার এখানকার পার্বত্যবাসী যারা আছেন এবং পার্বত্য জেলায় যারা বসবাস করেন ও তার বাইরেও যারা আছেন সরকারী কর্মকর্তা ও কর্মচারী যারা আছেন তাদের জন্য তিন দিনের ঐচ্ছিক ছুটির ব্যবস্থা করা হয়েছে। কাজেই আজকে যারা বাইরে চাকুরী করেন অনেকেই এই উৎসবে সমবেত হয়েছেন। তাই আমি মনে করি যে সবার জন্য এই বৈসাবী মঙ্গল বয়ে আনবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।
এর আগে ড. গওহর রিজভী বৈসাবির র‌্যালীর উদ্বোধন করেন এবং ফুল বিজু উপলক্ষে কাপ্তাই হ্রদে ফুল ভাসান। এসময় ত্রিপুরা সম্প্রদায়ের গড়াইয়া ও বিজু নৃত্য পরিবেশন করা হয়।

এই বিভাগের আরও খবর

  বঙ্গবন্ধুর খুনীরা যাতে মাথাচারা দিয়ে উঠতে না পারে সেই দিকে সবাইকে সজাগ থাকার আহবান

  জাতীয় ফুটবল দলে পার্বত্য অঞ্চলের মহিলা ফুটবলাররা ভালো ভূমিকা রাখছে-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা

  নতুন প্রজন্মকে উজ্জীবিত করতে রাঙ্গামাটি প্রতিটি বিদ্যালয়ে শহীদ মিনার নির্মাণ করা হবে-আকবর হোসেন চৌধুরী

  কাউখালীতে বাঙ্গালী গরু ব্যবসায়ী হত্যাঃ ২৫ হাজার টাকার জন্যই খুন!

  জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর জীবন নিয়ে কাঠ চিত্র প্রদর্শনীর উদ্বোধন

  দীর্ঘ ৩৬ বছর ধরে দৈনিক গিরিদর্পণ পার্বত্য অঞ্চলের মানুষের মুখপাত্র হিসাবে কাজ করেছে-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা

  যথাযোগ্য মর্যাদায় বরকল, জুরাছড়ি, বিলাইছড়ি, লংগদু ও রাজস্থলীতে জাতীয় শোক দিবস পালন

  শোক র‌্যালী, পুষ্পমাল্য অর্পণের মধ্যে দিয়ে রাঙ্গামাটিতে জাতির জনকের শাহাদাৎ বার্ষিকী পালিত

  প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের ভাগ্য উন্নয়ন তথা তাদের ক্ষমতায়নে সরকার বদ্ধ পরিকর-নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা

  যোগদানকৃত নতুন রিজিয়ন কমান্ডারের সাথে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সৌজন্য সাক্ষাৎকার

  ৩০ লক্ষ শহীদের শ্রদ্ধার্ঘ্যে রাঙ্গামাটিতে পুলিশের উদ্যোগে সবুজায়ন কর্মসূচী

  0

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

অনগ্রসর বিবেচনায় নারী, নৃগোষ্ঠীদের জন্য জন্য সরকারি চাকরিতে যে কোটা রয়েছে, তা তুলে দেওয়ার পক্ষে মত জানিয়ে কোটা পর্যালোচনা কমিটির প্রধান মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম বলেছেন, অনগ্রসররা এখন অগ্রসর হয়ে গেছে। আপনি কি তার সঙ্গে একমত?