মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ,২০১৯

Bangla Version
  
SHARE

বৃহস্পতিবার, ১১ অক্টোবর, ২০১৮, ০৬:১৫:২০

পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত নৃ-গোষ্ঠীদের জীবনধারার সাথে তাঁত ও হস্তশিল্পের একটি যোগসূত্র রয়েছে-বৃষ কেতু চাকমা

পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত নৃ-গোষ্ঠীদের জীবনধারার সাথে তাঁত ও হস্তশিল্পের একটি যোগসূত্র রয়েছে-বৃষ কেতু চাকমা

রাঙ্গামাটিঃ-রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ এর সহযোগীতায় ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন পরিষদের আয়োজনে রাঙ্গামাটিতে মাসব্যাপী তাঁত ও হস্তশিল্প মেলা-২০১৮ শুরু হয়েছে।
বুধবার (১০ অক্টোবর) বিকেলে রাঙ্গামাটি কুমার সমিত রায় জিমনেসিয়াম প্রাঙ্গণে আয়োজিত মেলায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ফিতা কেটে মেলার উদ্বোধন করেন রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা। পরে রাঙ্গামাটি প্রতিবন্ধী স্কুল ও পুর্নবাসন কেন্দ্রে এক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়।
রাঙ্গামাটি উদ্যোক্তা উন্নয়ন পরিষদের সাধারন সম্পাদক ও বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা আশিকা মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্রের নির্বাহী পরিচালক বিপ্লব চাকমা’র সভাপতিত্বে আলোচনাসভায় মহিলা চেম্বার এন্ড ইন্ডাষ্ট্রির সভাপতি মহিলা উদ্যোক্তা মনোয়ারা বেগম, রাঙ্গামাটি প্রেসক্লাবের সভাপতি সাখাওয়াৎ হোসেন রুবেল, রাঙ্গামাটি রিপোটার্স ইউনিটির সভাপতি সুশীল প্রসাদ চাকমা ও উদ্যোক্তা উন্নয়ন পরিষদের সদস্য সচিব ধর্মেশ খীসা বক্তব্য রাখেন।
আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা বলেন, যুগ যুগ ধরে পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত নৃ-গোষ্ঠীদের জীবনধারার সাথে তাঁত ও হস্তশিল্পের একটি যোগসূত্র রয়েছে। দেশ বিদেশের গার্মেন্টস এর ন্যয় পাহাড়ে উৎপাদিত তাঁত ও হস্তশিল্পের জিনিসপত্রের মান আরো বাড়ানো গেলে দেশ বিদেশে এর চাাহিদা আরো বাড়বে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, এই ধরনের মেলা আয়োজনের ফলে এখানকার ছোট বড় উদ্যোক্তারা তাদের নিজস্ব তৈরি জিনিসপত্র বিক্রয় ও প্রদর্শনী করতে পারবে। এর ফলে নতুন নতুন উদ্যোক্তারা আরো উৎসাহিত হবে।  তিনি আক্ষেপ করে বলেন, পার্বত্য অঞ্চলে আঞ্চলিক রাজনৈতিক দলগুলোর অস্তিরতার কারনে দিন দিন পর্যটকরা এখান থেকে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে যার ফলে এখানকার উৎপাদিত হস্তশিল্পের পন্য বিক্রী করতে পারছেনা উদ্যোক্তারা। পাশাপাশি এখানকার পর্যটন শিল্পকে ঢেলে সাজানো গেলে পর্যটকের আগমন ঘঠবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, এ জেলাকে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যরে পাশাপাশি শৈল্পিকভাবে সাজাতে ইতিমধ্যে জেলা পরিষদ উদ্যোগ গ্রহন করেছে। এর ফলে দেশী বিদেশী পর্যটকের আগমন ঘঠবে এবং এখানকার তাঁত ও হস্তশিল্পে উৎপাদিত পন্যের চাহিদা বাড়বে। এ মেলা আগামী নভেম্বর ১০ তারিখ পর্যন্ত চলবে।

এই বিভাগের আরও খবর

  রাঙ্গামাটির খাদ্য অফিসে প্রতি সিডিউল ৩শ টাকা বেশী নেয়ার অভিযোগ!

  রাঙ্গামাটি ডিসি অফিস সংলগ্ন এলাকায় প্রকাশ্যে ধুমপান করার দায়ে ৬ ব্যক্তিকে জরিমানা

  পাহাড়ি কৃষি গবেষণা কেন্দ্রে গ্রীষ্মকালীন টমেটো উৎপাদন বিষয়ক কৃষক প্রশিক্ষণ

  একটি ব্রীজের অভাবে পাঁচ গ্রামের মানুষের চরম দূর্ভোগ

  রাঙ্গামাটি কলেজ গেইট এলাকার জমি বিরোধ নিয়ে প্রয়াত ডা.একে দেওয়ান পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

  রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে গুর্খা সম্প্রদায়ের সৌজন্য সাক্ষাৎ

  রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা এলাকায় পারিবারিক কলহের জের ধরে রাজমিস্ত্রীর বিষ পানে আত্মহত্যা

  শিক্ষকদের পাঠদানের পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের মাঝে সঠিক মুল্যবোধ প্রদান করতে হবে-একে এম মামুনুর রশিদ

  দখলকারীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা না হলে ১৭ সেপ্টেম্বর সড়ক অবরোধ-সংবাদ সম্মেলনে এ্যাড.দীপেন দেওয়ান

  মোটরসাইকেলের ধাক্কায় কাপ্তাই রাইখালীর ব্যবসায়ী সুসঙ্গ ভট্টাচার্য্যরে মৃত্যু

  প্রতিষ্ঠার ৩৫ বছরে এমপিও ভূক্ত না হওয়ায় হতাশ চন্দ্রঘোনা কেআরসি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডেঙ্গুতে মৃত্যুর সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তির প্রেক্ষাপটে আইইডিসিআরের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলছেন, মৃত্যুর ঘটনাগুলো ‘রিভিউ’ করার কোনো প্রয়োজন নেই, চিকিৎসকদের কথাই যথেষ্ট। আপনি কি তাকে সমর্থন করেন?