মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ১৪ জানুয়ারী, ২০১৮, ০২:৪৭:৪৩

অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক মিন্টু কুমার শীলের পরলোকমন

অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক মিন্টু কুমার শীলের পরলোকমন

রাঙ্গামাটিঃ-রিজার্ভ বাজার নিবাসী, অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক, শহীদ শুক্কুর এ্যাথলেটিক্স ক্লাবের অন্যতম সদস্য প্রাক্তন ক্রীড়াবিদ, বিশিষ্ট স্বর্ণ ব্যবসায়ী মিন্টু কুমার শীল পরলোক গমন করেছেন। গতকাল সকালে উচ্চ রক্তচাপ জনিত কারণে হৃদযন্ত্র ক্রীয়া বন্ধ হয়ে রাঙ্গামাটি সদর হাসপাতালে মৃত্যু বরণ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭৫ বছর। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ২ পুত্র, ১ কন্যা, পুত্রবধু, নাতি নাতনীসহ বহু আত্মীয় স্বজন রেখে গেছে। তার মৃত্যুতে রিজাভ বাজার এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।
পারিবারিক সুত্র জানায়, তিনি দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ অবস্থায় ছিলেন। গতকাল সকালে প্রতিদিনের মতো বাসায় বসে ঔষধ সেবনের সময় সময় হঠাৎ অসুস্থ বোধ করলে বিছানায় লুটিয়ে পড়ে। পরে তার নাকে মুখে দিয়ে রক্তক্ষরণ শুরু হলে দ্রুত তাকে রাঙ্গামাটি সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ায় হয়। পরে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।
তাকে শেষ বারের মতো শ্রদ্ধা জানাতে সাবেক পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার, রাঙ্গামাটি পৌরসভার মেয়র আকবর হোসেন চৌধরী, প্রবীন সাংবাদিক সুনীল কান্তি দে, রাঙ্গামাটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার কর্মকর্তা বৃন্দ, রাঙ্গামাটি শহীদ শুক্কুর ক্লাবে কর্মকর্তা বৃন্দ, শ্রী শ্রী গীতাশ্রম মন্দিরের কর্মকর্তা সহ সর্বস্তরের মানুষ তাকে শেষ বারের মতো শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।
শহীদ আব্দুর শুক্কুর ক্লাবের শোক
বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ আব্দুর শুক্কুর এর সম সামায়িক এবং স্বাধীনতা পূর্ববর্তী ও পরবর্তী সময়ের বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম জেলা দলের হয়ে জাতীয় পর্যায়ের ফুটবল প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী অত্র ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার কৃতি ফুটবল খেলোয়াড় মিন্টু কুমার শীল সকাল ৮ ঘটিকায় রাঙ্গামাটি সদর হাসপাতালে পরলোক গমন করেন।
বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ আবদুস শুক্কুর ক্লাব রাঙ্গামাটির সম্পাদক মোঃ আবদুল মামুন স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে ক্লাবের পক্ষ থেকে আমরা তাঁর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা পূর্বক শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।
দৈনিক গিরিদর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের শোক
রিজার্ভ বাজার নিবাসী, অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক, বিশিষ্ট স্বর্ণ ব্যবসায়ী মিন্টু কুমার শীলের মৃত্যুতে দৈনিক গিরিদর্পণ সম্পাদক এ,কে,এম ,মকছুদ আহমেদ গবীর শোক জানিয়েছেন। এক শোক বার্তায় তিনি প্রয়াতের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা পূর্বক শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
মাষ্টার হারাধন স্মৃতি সংসদের শোক
রিজার্ভ বাজার নিবাসী, অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক, বিশিষ্ট স্বর্ণ ব্যবসায়ী মিন্টু কুমার শীলের মৃত্যুতে মাষ্টার হারাধন স্মৃতি সংসদের পক্ষ থেকে গভীর শোক জানিয়েছেন। এক শোক বার্তায় নেতৃবৃন্দ প্রয়াতের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা পূর্বক শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
মাষ্টার হারাধন স্মৃতি ফাউন্ডেশনের শোক
রিজার্ভ বাজার নিবাসী, অভিবক্ত পার্বত্য চট্টগ্রাম ফুটবল দলের সাবেক গোলরক্ষক, বিশিষ্ট স্বর্ণ ব্যবসায়ী মিন্টু কুমার শীলের মৃত্যুতে মাষ্টার হারাধন স্মৃতি ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে গভীর শোক জানিয়েছেন। এক শোক বার্তায় ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক নন্দন দেবনাথ প্রয়াতের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা পূর্বক শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

এই বিভাগের আরও খবর

  বিলাইছড়ির দূর্গম ফারুয়ায় বিদ্যুৎ বিহীন হতদরিদ্র পরিবাররা পেল বিনামূল্যে সোলার

  না ফেরার দেশে চলে গেলেন মাওলানা মোহাম্মদ শাহজাহান

  বোধিধারা পত্রিকা মূলত বৌদ্ধ ধর্মীয় ব্যাখ্যা তথা দিক নির্দেশনা-ভদন্ত প্রজ্ঞালংকার মহাথের

  ভ্রাত্রিঘাতি সংঘাতে পাহাড়ের সাধারণ মানুষ এখন নিরাপত্তা হীনতায় ভুগছে-বৃষ কেতু চাকমা

  পর্যটক বান্ধব আদর্শ রাঙ্গামাটি শহর গড়ার লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন অভিযান অব্যাহত

  বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্যে দিয়ে কাপ্তাই এ মীনা দিবস পালিত

  এলাকাবাসীকে পরিচ্ছন্ন সুন্দর রাঙ্গামাটি শহর উপহার দিতে মাসব্যাপী এই অভিযান-একেএম মামুনুর রশিদ

  রাঙ্গামাটিতে ট্রাক-অটোরিক্সা মুখোমুখি সংর্ঘষে আহত-৫

  রাঙ্গামাটিতে বিশ্ব পর্যটন দিবস উদযাপনে প্রস্তুতিমূলক সভা

  নানিয়ারচরে হত্যাকান্ডের ৪০ ঘন্টা পরও নিহতের লাশ নিতে আসেনি কোন স্বজন

  ১ মাসের মধ্যে পরিস্কার পরিচ্ছন্ন অভিযান করে শহরকে আকর্ষনীয় করে গড়ে তোলা হবে-একে এম মামুনুর রশিদ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

তত্ত্বাবধায়ক সরকার আমলে চালু হওয়া ‘না’ ভোট একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ সংশোধনের উদ্যোগের মধ্যে পুনঃপ্রবর্তনের প্রস্তাব করেছে নাগরিক সংগঠন সুজন। আপনি কি তা সমর্থন করেন?