বুধবার, ২৩ মে ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

বুধবার, ০৬ ডিসেম্বর, ২০১৭, ০৬:০৮:১৩

পাহাড়ের শান্ত পরিস্থিতি আবারো অশান্ত

পাহাড়ের শান্ত পরিস্থিতি আবারো অশান্ত

রাঙ্গামাটিঃ-পাহাড়ের শান্ত পরিস্থিতি আবারো অশান্ত হয়ে উঠেছে। শান্তি চুক্তির ২ দশক পূর্তির অনুষ্ঠানের দুই দিন পর আবারো রক্তাক্ত হয়ে উঠেছে রাঙ্গামাটির পাহাড়। সাধারণ মানুষের মনে দেখা দিয়েছে উদ্বেগ উৎকন্ঠা।
৫ জুন গেল মঙ্গলবার একই দিনে রাঙ্গামাটির নানিয়ারচর ও জুরাছড়ি উপজেলায় দুই জনকে গুলিতে  হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। আর বিলাইছড়িতে অপর এক জনকে কুপিয়ে আহত করা হয়।
নিহতরা হলেন, নানিয়ারচরের সাবেক চেয়ারম্যান অনাদি রঞ্জন চাকমা, জুরাছড়ি যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অরবিন্দ চাকমা। বুধবার (৬ ডিসেম্বর) নিহতদের ময়না তদন্ত শেষে আত্মীয় স্বজনকে মরদেহ হস্তান্তর করা হয়। আহত রাসেল চাকমাকে রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহত রাসেল চাকমা ও নিহত অরবিন্দ চাকমার ভাই সত্য প্রিয় চাকমা ঘটনার জন্য দায়ী করেন স্থানীয় রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে।
রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে এ সব ঘটনা ঘটানো হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন সাবেক পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার। পাহাড় থেকে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের জোর দাবী জানিয়েছেন তিনি। আর এইসব অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার করা না হলে পাহাড়ের মানুষ শান্তিতে থাকতে পারবেনা।
হত্যাকান্ড দুটিকে টার্গেট কিলিং বলে ধারণা পুলিশের। তবে এ হত্যাকান্ডের ঘটনাগুলো আইন শৃংখলা পরিস্থিতিকে বিঘ্ন করবেনা বলে জানান রাঙ্গামাটি পুলিশ সুপার সাইদ তারিকুল হাসান।
এদিকে ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার জুরাছড়ি উপজেলায় পালন করা হয় সকাল-সন্ধ্যা হরতাল। পাহাড়ে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষের উপর হামলা শুরু হওয়ায় সাধারণ মানুষের মধ্যে উদ্বেগ উৎকন্ঠা দেখা দিয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

  ভবিষ্যতে আইসিটি প্রকল্পটিকে আরো আধুনিক করে গড়ে তুলতে বোর্ডের পরিকল্পনা রয়েছে-তরুন কান্তি ঘোষ

  সীতাকুন্ডে ত্রিপুরা কিশোরী হত্যারীদের শাস্তির দাবীতে রাঙ্গামাটিতে ত্রিপুরা স্টুডেন্ট ফোরামের মানববন্ধন

  কাপ্তাইয়ে দিনভর ভারি বৃষ্টিতে উপজেলা সদরের সড়কে হাঁটু পানি

  চুক্তিকে নৎসাতের ষড়যন্ত্র হিসেবে পাহাড়ে আবারও রক্তে হলি খেলা শুরু হয়েছে-উষাতন তালুকদার এমপি

  ঋণ যথাযথ কাজে ব্যবহার না করে বেকারত্ব জীবনে মুখ থুপরে পরছে-উদয় জয় চাকমা

  সমন্বয় না থাকলে এলাকার উন্নয়ন সম্ভব নয়-বৃষ কেতু চাকমা

  বর্তমান সরকার শিক্ষার মানোন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে-বৃষ কেতু চাকমা

  অবৈধ মাছ শিকারীদের বিরুদ্ধে সামাজিক ও আইনের মাধ্যমে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে-মোঃ রইসুল আলম মন্ডল

  পার্বত্য অঞ্চলে নৈরাজ্য সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে-দীপংকর তালুকদার

  রাঙ্গামাটির প্রধান তিনটি বাজারে জেলা প্রশাসনের মোবাইল কোর্ট

  এ প্রযুক্তির বদৌলতে মোবাইল ও ইন্টারনেটের মাধ্যমে জনগণ ঘরে বসে সেবা পাচ্ছে

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বাংলাদেশের ক্ষমতায় কে আসবে তা এ দেশের জনগণই নির্ধারণ করবে, এ বিষয়ে ভারতের ইন্টারফেয়ার করার কিছু নেই। আপনি কি তার সঙ্গে একমত?