বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ,২০১৯

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ০৬ জানুয়ারী, ২০১৯, ০৮:৫৯:০৯

সাবেক মন্ত্রী নাজমুল হুদা কারাগারে

সাবেক মন্ত্রী নাজমুল হুদা কারাগারে

ডেস্ক রিপোর্টঃ-চার দলীয় জোট সরকারের সাবেক মন্ত্রী ব্যারিস্টার নাজমুল হুদাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।
দুর্নীতির মামলায় চার বছরের সাজার রায়ের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার দ্বিতীয় বিশেষ জজ এইচ এম রুহুল ইমরান এর আদালতে হাজির হয়ে আত্মসমর্পণ করেন তিনি। পরে আদালত জামিন এর আবেদন নাকচ করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।
‘খবরের অন্তরালে’ সাপ্তাহিক পত্রিকার নাম করে ২ কোটি ৪০ লাখ টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে নাজমুল হুদাকে সাত বছরের কারাদণ্ড দেয় বিচারিক আদালত। ২০১৭ সালে হাইকোর্ট সাজার মেয়াদ কমিয়ে চার বছর করে দেয়।
সবশেষ গত ১৯ নভেম্বর হাইকোর্টের রায়ের পূর্ণাঙ্গ অনুলিপি প্রকাশ করে সুপ্রিম কোর্ট। পূর্ণাঙ্গ অনুলিপি প্রকাশের ৪৫ দিনের মধ্যে তাকে বিচারিক আদালতে উপস্থিত হওয়ার নির্দেশ দেন। সেই অনুযায়ী তিনি আজ আদালতে আত্মসমর্পণ করে তিনি জামিন আবেদন করেছিলেন।
বিএনপির স্থায়ী কমিটির সাবেক সদস্য ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা ২০০১-০৬ মেয়াদে যোগাযোগ মন্ত্রী ছিলেন। পরে তিনি বিএনপি ছেড়ে বিএনএফ গঠন করলে সেই দল থেকেও বহিস্কার হন। সবশেষ ঢাকা-১৭ আসন থেকে একাদশ জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিয়ে পরাজিত হন।

এই বিভাগের আরও খবর

  রিফাত হত্যা: পলাতক ৯ আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি

  এজাহার বদলে দিলেন ওসি, বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ

  তারেক রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

  এ মাসেই নুসরাত হত্যা মামলার নিষ্পত্তিঃ বিচার বিলম্বের চেষ্টা, অভিযোগ বাদী ও রাষ্ট্রপক্ষের

  সাঁওতাল হত্যা মামলার চার্জশিটের বিরুদ্ধে নারাজি পিটিশন, শুনানি ৪ নভেম্বর

  তাহেরীর বিরুদ্ধে মামলার আবেদন খারিজ

  জামিনে মুক্তি, অ্যাম্বুলেন্সযোগে বাসায় গেলেন মিন্নি

  মিন্নির জামিন বহাল, মুক্তিতে বাধা নেই

  ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের অভিযোগে তাহেরীর বিরুদ্ধে মামলা

  দুদকের মামলায় লতিফ সিদ্দিকীর জামিন নামঞ্জুর

  আদালত কক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি প্রদর্শনে নির্দেশ হাইকোর্টের

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

ডেঙ্গুতে মৃত্যুর সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তির প্রেক্ষাপটে আইইডিসিআরের সাবেক পরিচালক মাহমুদুর রহমান বলছেন, মৃত্যুর ঘটনাগুলো ‘রিভিউ’ করার কোনো প্রয়োজন নেই, চিকিৎসকদের কথাই যথেষ্ট। আপনি কি তাকে সমর্থন করেন?