শুক্রবার, ১৯ জানুয়ারী ,২০১৮

Bangla Version
SHARE

বৃহস্পতিবার, ০৪ জানুয়ারী, ২০১৮, ০৭:৫৬:৪৭

মেয়র সাক্কুকে আত্মসমর্পণে হাইকোর্টের নির্দেশ

মেয়র সাক্কুকে আত্মসমর্পণে হাইকোর্টের নির্দেশ

ডেস্ক রিপোর্টঃ-কুমিল্লার সিটি মেয়র মনিরুল হক সাক্কুকে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা দুর্নীতির মামলায় বিশেষ আদালতের অব্যাহতির আদেশ কেন অবৈধ হবে না- তা জানতে চেয়ে আজ রুল জারি করেছে হাইকোর্ট। বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের একটি ডিভিশন বেঞ্চ আজ এ আদেশ দেয়।
দুদকের আইনজীবী খুরশিদ আলম খান এ কথা জানান। তিনি বলেন ,এ মামলায় তাকে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণ করতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি বিচারিক আদালতকে সাক্কুকে জামিন দিতে বলা হয়েছে। অবৈধ সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের অভিযোগে ২০০৮ সালের ৭ জানুয়ারি সাক্কুর বিরুদ্ধে ঢাকার রমনা থানায় মামলা করেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক শাহীন আরা মমতাজ। গত বছরের ১৮ এপ্রিল মামলার অভিযোগপত্র আমলে নিয়ে সাক্কুর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন ঢাকার সিনিয়র স্পেশাল জজ কামরুল হোসেন মোল্লা। এরপর আত্মসমর্পণ করে জামিন নেন সাক্কু।
পরে গত ২২ নভেম্বর অবৈধ সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের মামলা থেকে কুমিল্লা সিটি মেয়র ও বিএনপি নেতা মনিরুল হক সাক্কুকে অব্যাহতি দেন ঢাকার আট নম্বর বিশেষ জজ আদালত। বিচারক শামীম আহম্মদ এ আদেশ দেন। এরপর উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত সাক্কুকে মামলা থেকে অব্যাহতি দেন।
বিচারিক আদালতের সেই আদেশের বিরুদ্ধে দুদকের এক আবেদনের প্রেক্ষিতে আজ হাইকোর্ট রুল জারিসহ সাক্কুকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ দেন।

এই বিভাগের আরও খবর

  জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলা পরবর্তী শুনানি ২৩ জানুয়ারি

  ডিএনসিসির মেয়র পদে উপনির্বাচন স্থগিত

  ভ্রাম্যমাণ আদালতঃ আপিলের অনুমতি পেলো সরকার

  সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ নিয়ে দ্বিধাবিভক্ত আদেশ, নিষ্পত্তি হবে তৃতীয় বেঞ্চে

  ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলাঃ আসামি পক্ষের অপ্রয়োজনীয় বক্তব্যে আদালত বিরক্ত

  হাই কোর্টে আটকে গেল ফোর জি

  পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদ আইন বাতিলে আপিল শুনানি ২৩ জানুয়ারি

  ভ্রাম্যমাণ আদালত বিষয়ে আপিল শুনানি ১৬ জানুয়ারি

  রোহিঙ্গা নারীকে বিয়েঃ রিট খারিজ ও জরিমানা

  ২০ বছর ধরে বিচারাধীন ১৯ জেল আপিল গ্রহণ করেছে হাইকোর্ট

  মেয়র সাক্কুকে আত্মসমর্পণে হাইকোর্টের নির্দেশ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

পুলিশের আইজিপি এ কে এম শহিদুল হক বলেছেন, ‘দেশকে জঙ্গি, মাদক ও সন্ত্রাসমুক্ত করতে হলে পুলিশের পাশাপাশি জনগণকে কাজ করতে হবে।’ আপনিও কি তাই মনে করেন?